প্রদীপ অধিকারী: জয়পুরহাটের পাঁচবিবিতে ডিবি পুলিশ পরিচয়ে ৪ ছিনতাইকারীসহ বিভিন্ন মামলার ওয়ারেন্টভূক্ত ২০ আসামীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। উপজেলার জয়পুরহাট-হিলি সড়কের বাগজানা বাজার এলাকায় ডিবি পুলিশ পরিয়য়ে ছিনতায়ের সময় এবং উপজেলার বিভিন্ন গ্রামে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

থানা সূত্রে জানা গেছে, শুক্রবার (২০) মে বিকেলে বাগজানা বাজার হতে ৩০০ মিটার দূরে ডিবি পুলিশের পরিচয় দিয়ে গাইবান্ধা থেকে আসা ধানকাটা শ্রমিকবাহী পিকআপ গাড়ির গতি রোধ করে যাত্রীদের তল্লাশী নামে ছিনতাইয়ের চেষ্টা করলে পাঁচবিবি থানার এসআই মোঃ আনিছুর রহমান-২ সঙ্গীর ফোর্সসহ ৪ ছিনতাইকারীকে হাতেনাতে গ্রেফতার করেন। তারা হলেন, উপজেলার ছিট মানিক গ্রামের আব্দুল জলিলের ছেলে সাগর (৩২), মাতাস মঞ্জিল মালঞ্চ গ্রামের মৃত মঞ্জুরুল করিমের ছেলে মানিক হোসেন (৪০), একই এলাকার শরিফ উদ্দিনের ছেলে হেলাল হোসেন (৫০) ও দমদমা পুরাতন পৌরসভা এলাকার রাম চন্দ্র রায়ের ছেলে শ্রীঃ রতন চন্দ্র রায় (৩৮)।

অপরদিকে শনিবার(২১মে) গভীর রাতে থানার অফিসার ইনচার্জ পলাশ চন্দ্র দেবের নেতৃত্বে উপজেলার বিভিন্ন গ্রামে অভিযান চালিয়ে মাদকসহ বিভিন্ন মামলার ওয়ারেন্টভূক্ত ১৬ আসামীকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃতরা হলো-উপজেলার বীরনগর গ্রামের আশরাফুল(৩৫), কলন্দপুরে আশা মুন্ডা(৩০), মালিদহের আঃ মালেক(৫৫), পাঁচবিবি বাজার এলাকার মুনছুর(৩৩), চকশিমুলিয়া গ্রামের নুর নাহার(৫০), পশ্চিম উচনার মালেকুল ওরফে মালেক, কটুহারা গ্রামের শহিদুল (৪৫), লুৎফর(৪২), লতিফা(৪৫), আনারুল (৪০), রাজু মিয়া(৩৫), রামভদ্রপুর গ্রামের ইলিয়াছ(৩৬), খাসবাট্টা গ্রামের সোহরাব(৪৫), ও রসুলপুর গ্রামের বুধু মাহাতো(৪৮) মামুনুর আলম(৩৮)। পাঁচবিবি থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) পলাশ চন্দ্র দেব জানান, ডিবি পুলিশ পরিচয়ে ছিনতাইয়ের ঘটনায় মামলা এবং ওয়ারেন্টভূক্ত অন্যান্য আসামীদের গ্রেফতার দেখিয়ে (২১ মে) আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

 

Previous articleব্রাহ্মণবাড়িয়ায় স্বামী হত্যার অভিযোগে স্ত্রী আটক
Next articleবর্তমান সরকার ভালো নেই বলেই তাদের মুখে অসংলগ্ন, কুরুচিপূর্ণ বক্তব্য আসে: খন্দকার মোশাররফ
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।