রেজাউল ইসলাম পলাশ: ঝালকাঠির রাজাপুরে খরিপ- ২/২০২২-২৩ মৌসুমে উফশী আমন উৎপাদন বৃদ্ধির লক্ষ্যে প্রান্তিক ও ক্ষুদ্র কৃষকের মাঝে বিনামূল্যে আমন ধানের বীজ, ডিএপি এবং এমওপি সার বিতরণ কার্যক্রম উদ্বোধন করা হয়েছে। উপজেলার ছয়টি ইউনিয়নের দুই হাজার ৪৫০ জন ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক চাষীদের মাঝে বিনামূল্যে এই রাসায়নিক সার ও বীজ বিতরণ করা হয়েছে।

রবিবার (৩০ জুন) সকাল সাড়ে ১১টায় উপজেলা কৃষি অধিদপ্তরের অয়োজনে উপজেলা পরিষদের চত্তরে বিতরণী অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নুসরাত জাহান খান। এ সময় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান আফরোজা আক্তার লাইজু, উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মোঃ রিয়াজ উল্লাহ বাহাদুর কৃষি সম্প্রসারণ কর্মকর্তা মেহেরুন নেচ্ছা পাপড়ি প্রমূখ।

এসময় উপজেলার সকল ইউনিয়ন থেকে আগত তালিকাভুক্ত ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক কৃষকের প্রত্যেককে ৫ কেজি উকশী আমন ধানের বীজ, ১০ কেজি ডিএপি এবং ১০ কেজি এমওপি সার বিতরণ করা হয়েছে। কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সূত্রে জানা যায়, আমনের আবাদ ও উৎপাদন বাড়াতে সরকারের নীতিগত সিদ্ধান্ত রয়েছে। ভালো ফলন পেতে হলে ভালো বীজের প্রয়োজন। আমন মৌসুমে নিজের বীজ নিজে রেখে ব্যবহার করাই উত্তম। এ কথা মনে রেখেই কৃষিবান্ধব সরকার কৃষকদের কথা চিন্তা করে গত অর্ধ যুগের বেশি সময় ধরেই আমন আবাদে মৌসুম ও এর পরিবেশ উপযোগী কৃষিতাত্ত্বিক ব্যবস্থাপনা উদ্ভাবন করা ভালো বীজ সহ বিভিন্ন ধরনের প্রণোদনা দিয়ে যাচ্ছে।

উচ্চফলনশীল জাতের আমন ধান আবাদ তুলনামূলক কম উৎপাদন খরচ এবং সরকারের নানাবিধ ভর্তুকি সহায়তা কার্যক্রম এবং পরিবেশগত বিষয়ের কারণে আমন আবাদ আবার জনপ্রিয় করাই কৃষি মন্ত্রণালয়ের অন্যতম লক্ষ্য।

Previous articleনোয়াখালীতে ১০ জুয়াড়ি আটক
Next articleপ্রেমিকার কাছে ‘হিরো’ সাজতেই শিক্ষককে স্টাম্প দিয়ে পিটিয়ে মারে: র‌্যাব
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।