বাংলাদেশ প্রতিবেদক: ভারতের মহারাষ্ট্রের একটি হাসপাতালে অক্সিজেন ট্যাঙ্কারে ছিদ্র হয়ে দমবন্ধ হয়ে ২২ করোনা রোগী মৃত্যু হয়েছে।

এনডিটিভি ও বিবিসি জানায়, বুধবার (২১ এপ্রিল) মহারাষ্ট্রের নাসিক জেলার জাকির হোসেন হাসপাতালে অক্সিজেন ট্যাঙ্কার রিফুয়েলিংয়ের সময় ঘটেছে এ মর্মান্তিক ঘটনা।

মহারাষ্ট্রের স্বাস্থ্যবিভাগ সূত্রে জানা গেছে, নাসিকের এই হাসপাতালটি শুধুমাত্র করোনা রোগীদের চিকিৎসার দেয়া হয়। সেখানে ভর্তি রোগীদের মধ্যে প্রায় দেড়শ জন ছিলেন ভেন্টিলেশনে, অর্থাৎ গুরুতর অসুস্থ হওয়ায় তাদেরকে অক্সিজেন দেওয়া হচ্ছিল। ট্যাঙ্কারের ছিদ্র দিয়ে অক্সিজেন বেরিয়ে যাওয়ায় প্রায় ৩০ মিনিট অক্সিজেন সরবরাহ বন্ধ ছিল হাসপাতালটিতে। এই সময়ের মধ্যেই তাদের মৃত্যু ঘটে।

মহারাষ্ট্র রাজ্য সরকারের স্বাস্থ্যমন্ত্রী রাজেশ তোপে এক বার্তায় বলেন, ‘আমরা জানতে পেরেছি, ট্যাঙ্কারের ছিদ্র দিয়ে অক্সিজেন বেরিয়ে যাওয়ায় হাসপাতালটিতে অক্সিজেন সরবরাহ বিঘ্নিত হয়েছিল। এ কারণেই তাদের মৃত্যু হয়েছে।’ এদিকে বিবিসি মারাঠিকে সাক্ষাতকার দেয়া মৃতরোগীদের এক আত্মীয় জানান, আমরা এর উপযুক্ত বিচার চাই। যার কারণে এমন মর্মান্তিক ঘটনা ঘটেছে। তার শস্তি দাবি করছি।

এদিকে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ দ্রুত দমকল বাহিনীর সহযোগিতা চাইলে বাহিনীর সদস্যরা এসে ট্যাঙ্কারের ছিদ্র বন্ধ করেন। এই সময়ের মধ্যেই মারা গেছেন ২২ রোগী।

হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, ভেন্টিলেশনে থাকা ৩১ রোগীকে ইতোমধ্যে নিকটস্থ অপর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এদিকে সিটি কর্পোরেশনের কমিশনার কৈলাশ যাদব জানিয়েছেন, মর্মান্তিক এই ঘটনা কিভাবে ঘটলো তার তদন্তে কমিশন গঠন করা হয়েছে।

Previous articleএ বছরের ফিতরা নির্ধারণ
Next articleহেফাজত নেতা খুরশিদ কাসেমী ও আতাউল্লাহ আমীন গ্রেফতার
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।