কাগজ প্রতিবেদক: নির্বাচনী প্রচারণা চালানোর সময় গাড়িবহরে হামলা ও ভাঙচুরের প্রতিবাদে জেলা প্রশাসক (ডিসি) ও জেলা রিটার্নিং কর্মকর্তার কার্যালয়ের সামনে অবস্থান নিয়েছেন টাঙ্গাইল-৪ (কালিহাতী) আসনের স্বতন্ত্র প্রার্থী লতিফ সিদ্দিকী।

রবিবার বেলা সোয়া ২টা থেকে সেখানে অবস্থান নেন তিনি। পরে বেড, কাঁথা, বালিশ বিছিয়ে বসে পড়েন আওয়ামী লীগের সাবেক এই মন্ত্রী। সন্ধ্যা গড়িয়ে রাত হলেও একটুও নড়েননি তিনি। বরং তাঁবু গেঁড়ে, লেপ নিয়ে রাত্রিযাপনের সব প্রস্তুতি সেরে শুয়ে পড়েছেন তিনি। স্থান ছাড়বেন না দাবি আদায় না হওয়া অব্দি।

জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে সামনে গিয়ে দেখে যায়, রাতে থাকার জন্য ডিসি অফিসের সামনের রাস্তায় তাঁবু টাঙানো হয়েছে। আর ভেতরে মাটিতে পাটি ও তোষক বিছানো হয়েছে। প্রচণ্ড শীতের কারণে সেখানে লেপ গায়ে দিয়ে শুয়ে রয়েছেন লতিফ সিদ্দিকী।
দুপুরে নির্বাচনী প্রচারণা চালানোর সময় তার গাড়িবহরে হামলার ও ভাঙচুর করা হয়। কালিহাতী উপজেলার গোহালিয়াবাড়ির সরাতৈল এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন ২০ নেতাকর্মী। এদিকে টাঙ্গাইলের জেলা প্রশাসক ও রিটার্নিং কর্মকর্তা শহীদুল ইসলাম এবং পুলিশ সুপার সঞ্জিত কুমার রায় লতিফ সিদ্দিকীর সঙ্গে দেখা করেন। সেখানে কালিহাতীর ওসি মীর মোশারফ হোসেনের প্রত্যাহার ও হামলাকারীদের গ্রেফতার না করা পর্যন্ত অবস্থান কর্মসূচি চলবে বলে তাদের জানান লতিফ সিদ্দিকী।