কাগজ প্রতিনিধি: কুড়িগ্রামে ভোট কারচুপি ও ব্যালট পেপার ছিনতাইয়ের অভিযোগে ১৩টি কেন্দ্রের ভোটগ্রহণ পুরোপুরি স্থগিত করা হয়েছে। এছাড়াও ভোটকেন্দ্রে হামলার চেষ্টায় কুড়িগ্রাম সদরের কিশলয় আদর্শ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে পুলিশ দুই রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছোড়ে।

অপরদিকে ভুরুঙ্গামারী উপজেলার ভাওয়ালকুরী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে হাঙ্গামা ঠেকানোর প্রস্তুতি নিতে গিয়ে আনসার সদস্য মাইদুলের (৩৫) বন্দুক থেকে গুলি বের হয়ে পুলিশ সদস্য মোন্নাফের (৪৩) পায়ে লেগেছে। তাকে ভুরুঙ্গামারী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

কিশলয় আদর্শ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রের প্রিসাইডিং অফিসার নিশিকান্ত রায় জানান, একদল দুর্বৃত্ত ব্যালট পেপার ছিনতাইয়ের চেষ্টা করলে পুলিশ ফাঁকা গুলি ছুড়ে তাদের ছত্রভঙ্গ করে দেয়।

অপরদিকে ভাওয়ালকুরী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রের প্রিসাইডিং অফিসার হারুন অর রশীদ জানান, আনসারের গুলিতে আহত পুলিশ সদস্য মোন্নাফের বাড়ি রংপুরে। আনসার সদস্য মাইদুলের বাড়ি ভুরুঙ্গামারী এলাকায়। তাৎক্ষণিকভাবে আহত পুলিশ সদস্যকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

কুড়িগ্রামে ৫টি উপজেলার ১৩টি স্থগিত কেন্দ্রগুলো হলো- সদর উপজেলার মালভাঙ্গা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, শিবরাম সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, কুড়িগ্রাম সরকারি কলেজ ও টগরাইহাট সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়। উলিপুর উপজেলার হোকোডাঙ্গা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, মদিনাতুল উলুম সিনিয়র মাদরাসা, কিসামত মালতিমারী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও হাত্রিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়। নাগেশ্বরীতে কুটি নাওডাঙ্গা ফোরকানিয়া এবতেদায়ী মাদরাসা ও পূর্ব পয়রাডাঙ্গা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়। চিলমারীতে খালেদা শওকত সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও বৈলমন দিয়ারখাতা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় এবং রৌমারীতে ধনার চর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়।

জেলার ফুলবাড়ী উপজেলায় বিলুপ্ত ছিটমহল দাশিয়ারছড়াকে ইউনিয়ন ঘোষণার দাবিতে হাইকোর্টে রিটের প্রেক্ষিতে স্থগিতাদেশ থাকায় এই উপজেলায় নির্বাচন স্থগিত করা হয়।