ভূঞাপুরে ৪র্থ শ্রেণির ছাত্রীকে শ্লীলতাহানির অভিযোগে শিক্ষক গ্রেপ্তার

আব্দুল লতিফ তালুকদার: টাঙ্গাইলের ভূঞাপুরে এবার চতুর্থ শ্রেণির ছাত্রীকে শ্লীলতাহানির অভিযোগে মাসুদ রানা (৩০) নামে এক কিন্ডারগার্টেন শিক্ষককে গ্রেপ্তার করেছে থানা পুলিশ। সে উপজেলার ভূঞাপুর পৌর এলাকার বেতুয়া, পলিশা গ্রামের ইয়াসিন আলীর ছেলে। সে পলিশা এলাকায় একটি কিন্ডারগার্টেনে শিক্ষকতা করতেন। এ ঘটনা এলাকার প্রভাবশালী একটি মহল ধামাচাপা দেয়ার চেষ্টা করছিল। পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গেল ১১অক্টোবর রবিবার দুপুর ৩ টার দিকে উপজেলার বেতুয়া, পলিশা গ্রামের প্রতিবেশী কিন্ডারগার্টেন শিক্ষক মাসুদ ওই ছাত্রীর বাড়িতে যায়। এসময় বাড়িতে একাই বিভিন্ন খেলনা নিয়ে খেলছিল ওই ছাত্রী। এসময় মাসুদ পেছন থেকে ছাত্রীকে জামা ধরে টান দিয়ে জড়িয়ে ধরে। পরে ওই ছাত্রী চিৎকার করলে আশে পাশের লোকজন এগিয়ে আসলে মাসুদ দৌড়ে পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয় প্রভাবশালীরা বিষয়টি ধামাচাপা চেষ্টা করে। রবিবার রাতে মেয়ের বাবা বাদি হয়ে মাসুদের বিরুদ্ধে ভূঞাপুর থানায় মামলা দায়ের করলে পুলিশ রাতে তাকে গ্রেপ্তার করে। এবিষয়ে ভূঞাপুর থানা অফিসার ইনচার্জ মো. রাশিদুল ইসলাম বলেন, চতুর্থ শ্রেণীর ছাত্রীর শ্লীলতাহানির বিষয়ে কিন্ডারগার্টেন শিক্ষক মাসুদের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। দ্রুত সময়ের মধ্যে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। আজ সোমবার সকালে তাকে টাঙ্গাইলে আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।