শনিবার, ফেব্রুয়ারি ২৪, ২০২৪
Homeসারাবাংলাবিথীকে হত্যার দায় স্বীকার স্বামীর, কান্না থামছে না সুপ্তীর

বিথীকে হত্যার দায় স্বীকার স্বামীর, কান্না থামছে না সুপ্তীর

বাংলাদেশ প্রতিবেদক: বরিশালের বানারীপাড়ায় পারিবারিক কলহের জেরে গৃহবধূ বিথী সমদ্দারকে হাতুড়ি দিয়ে পিটিয়ে হত্যার দায় স্বীকার করেছেন তার স্বামী সুমন রায়।

সোমবার দুপুরে বরিশাল সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে ১৬৪ ধারায় হত্যার দায় স্বীকার করে জবানবন্দি দেন তিনি। আদালতের বিচারক খোকন হোসেন জবানবন্দি রেকর্ড করে আসামিকে জেলহাজতে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

এদিকে মাকে খুঁজে না পেয়ে কিছুতেই কান্না থামছে না বিথীর ৩ বছরের শিশুসন্তান সুপ্তী রায়ের। স্বজনসহ বাড়িতে আসা অন্য নারীদের মাঝে মাকে খুঁজে ফিরছে সে। সুপ্তীর এমন কান্না বাকিদেরও অশ্রুসিক্ত করছে।

এর আগে রোববার রাতে নিহত বিথী সমদ্দারের ভাই বিবেক সমদ্দার বাদী হয়ে বোন জামাতা সুমন রায়, তার বাবা সাবেক ইউপি সদস্য সুধীর রায় ও মা সন্ধ্যা রায়কে আসামি করে বানারীপাড়া থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন।

রোববার সকাল ১১টার দিকে উপজেলার উদয়কাঠি ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ডের তেতলা গ্রামে হাতুড়ি দিয়ে পিটিয়ে স্ত্রী বিথী সমদ্দারকে হত্যা করেন সুমন রায়। এরপর নিজেই জাতীয় জরুরি সেবা নম্বর ৯৯৯-এ ফোন করে স্ত্রীকে ‘মার্ডার’ করেছেন জানিয়ে আত্মসমর্পণ করার কথা জানান। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে তাকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়।

বানারীপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মাইনুল ইসলাম জানান, আসামি সুমন রায়কে গ্রেপ্তার করে আদালতে তোলা হলে সে হত্যার দায় স্বীকার করে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন। বাকি আসামিদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

এদিকে বরিশালের শেরে বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ময়নাতদন্ত শেষে বিথীর লাশ তার পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

প্রসঙ্গত, ৫ বছর আগে গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়া উপজেলার কান্দি ইউনিয়নের নয়াকান্দি গ্রামের বাসুদেব সমদ্দারের মেয়ে বিথী সমদ্দারের সঙ্গে বানারীপাড়ার উদয়কাঠি ইউনিয়নের ৬ নম্বর ওয়ার্ডের সাবেক ইউপি সদস্য সুধীর রায়ের ছেলে সুমন রায়ের বিয়ে হয়। তাদের সংসারে ৩ বছর বয়সী একটি কন্যাসন্তান রয়েছে।

আজকের বাংলাদেশhttps://www.ajkerbangladesh.com.bd/
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।
RELATED ARTICLES
- Advertisment -

Most Popular

Recent Comments