মুখলেসুর রহমান: কুষ্টিয়ার ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে (ইবি) চাকরি স্থায়ীকরণের দাবিতে আন্দোলন করেছে দৈনিক মুজুরি ভিত্তিতে বিভিন্ন হল, অফিস ও প্রশাসন ভবনে কর্মরত লেবাররা।
বুধবার (২৩ জুন) সকাল ৯টা থেকে দুপুর ২টা পর্যন্ত ক্যাম্পাসের প্রশাসন ভবন এলাকায় মিছিল ও অবস্থান কর্মসূচি পালন করে তারা। তবে তাদের আন্দোলনে যথাযথ করোনা প্রোটোকল মানতে লক্ষ্য করা যায় নি।

এছাড়াও তারা বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন অফিসের ফাইল আটকে রেখেছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

আন্দোলনকারীদের দাবি, আমরা এই বিশ্ববিদ্যালয়ে কেউ দশ বছর আবার কেউ বিশ বছর অস্থায়ী ভিত্তিতে চাকরি করছি। একের পর এক ভিসি পরিবর্তন হচ্ছে। স্থায়ী কর্মসংস্থানের আশ্বাস সবাই দেয়। কিন্তু কেউই স্থায়ী সমাধান করে না। আমরা করোনায় দীর্ঘদিন কর্মহীন আছি। আমাদের কেউ বেতন দেয় না। আমরা মানবেতর জীবন যাপন করছি। অতি দ্রুত আমাদের এই যৌক্তিক দাবি পুরণের জন্য ভিসি স্যারের নিকট দাবি করছি।

এদিকে লেবারদের চাকরি স্থায়ীকরণের বিষয়ে প্রশাসন ৭ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি করেছে বলে নিশ্চিত করেছে রেজিস্ট্রার দপ্তর। কমিটিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. আলমগীর হোসেনকে আহ্বায়ক ও রেজিস্ট্রার (ভারপ্রাপ্ত) আতাউর রহমানকে সদস্য সচিব করা হয়েছে। কমিটির অন্য সদস্যরা হলেন ইনফরমেশন অ্যান্ড কমিউনিকেশন টেকনোলজি বিভাগের প্রফেসর ড. মাহবুবুর রহমান, পরিবহন প্রশাসক প্রফেসর ড. আনোয়ার হোসেন, প্রক্টর প্রফেসর ড. জাহাঙ্গীর হোসেন, ট্যুরিজম এন্ড হসপিটালিটি ম্যানেজমেন্ট বিভাগের সভাপতি প্রফেসর ড. মাহবুবুল আরফিন এবং বায়োটেকনোলজি এন্ড জেনেটিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের অধ্যাপক ড. রেজওয়ানুল ইসলাম।

এ বিষয়ে উপাচার্য প্রফেসর ড. শেখ আব্দুস সালাম বলেন, ‘বিষয়টি খতিয়ে দেখার জন্য একটা কমিটি হয়েছে। প্রতিবেদন পেলে সে অনুযায়ী কাজ করা হবে।’

Previous articleঘুমের ওষুধ খাইয়ে নাতনিকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে সৎ নানা আটক!
Next articleবেনাপোল কাস্টমসে ভায়াগ্রার চালান আটক
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।