শুক্রবার, জুলাই ১৯, ২০২৪
Homeশিক্ষাদায়িত্ব পালনে চরম উদাসীনতার অভিযোগ ইবি প্রক্টরিয়াল বডির বিরুদ্ধে

দায়িত্ব পালনে চরম উদাসীনতার অভিযোগ ইবি প্রক্টরিয়াল বডির বিরুদ্ধে

বাংলাদেশ প্রতিবেদক: কুষ্টিয়ার ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রজ্বলিত-৩৫ ব্যাচের ‘অবতরণিকা উৎসব’ ঘিরে তিন শিক্ষার্থীর উপর অতর্কিত হামলা ঘটনায় প্রথম থেকেই উদাসীনতার অভিযোগ উঠেছে প্রক্টরিয়াল বডির বিরুদ্ধে । দীর্ঘ ১০ দিনেও অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থা গ্রহণ করে সিদ্ধান্ত নিয়ে অভিযুক্তদের শাস্তির আওতায় আনতে পারেনি বলে জানা গেছে।

গত বৃহস্পতিবার (২১ মার্চ) তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে ও তাদের কাজ ইনডিভিজুয়াল ভাবে চলমান বলে দাবি করেছেন প্রক্টর অধ্যাপক ড. শাহাদাৎ হোসেন আজাদ। অন্যদিকে সপ্তাহের কাছাকাছি তদন্ত কমিটি গঠন হলেও প্রথমে তদন্ত কমিটিতে থাকতে চাইনা পরে বলে মন্তব্য করেন কমিটির আহ্বায়ক অধ্যাপক ড. মুর্শেদ আলম। পরে আজ শনিবার (২৫ মার্চ) তিনি জানিয়েছে তদন্ত কাজ এখন শুরু করা যাবেনা ঈদের পরে অথবা প্রক্টর মহোদয় মিটিং করলে তদন্ত কাজ শুরু হবে।

এ তদন্ত কমিটিতে সহকারী প্রক্টর অধ্যাপক ড মুর্শেদ আলমকে আহ্বায়ক, সহকারী নিরাপত্তা কর্মকর্তা তোফাজ্জেল হোসেনকে সদস্য সচিব করা হয়। এছাড়া কমিটির অপর সদস্য হলেন সহকারী প্রক্টর সাজ্জাদুর রহমান টিটু। কমিটির সদস্যদের দ্রুততম সময়ের মধ্যে চূড়ান্ত প্রতিবেদন জমা দেওয়ার অনুরোধ জানিয়েছিলেন প্রক্টর অধ্যাপক ড. শাহাদৎ হোসেন আজাদ।

তদন্ত কার্যক্রমের অগ্রগতি সম্পর্কে জানতে চাইলে বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী প্রক্টর ও তদন্ত কমিটির আহবায়ক মুর্শীদ আলম বলেন, ‘তদন্ত কমিটির কার্যক্রম ঈদের ছুটির পরে শুরু হবে। আপাতত এর বেশি কিছু জানিনাহ। এছাড়া প্রক্টর মহোদয় আমাদেরকে নিয়ে মিটিং করার কথা রয়েছে। মিটিং এ বসলে পরবর্তী আপডেট জানবো।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড.শাহাদাৎ হোসেন আজাদ বলেন, ‘এ ব্যাপারে আমি কিছু জানিনাহ, তদন্ত কমিটি গঠন করে দিয়েছি। ওরা ইনডিভিজুয়ালি কাজ করতেছে। তদন্ত কমিটির সদস্যরা কাজ শেষে বিস্তারিত জানাবেন।’

তদন্ত কমিটির আহবায়কের দায়সারা বক্তব্যের ব্যাপারে জানতে চাইলে তিনি আরো বলেন, ‘ আমি তদন্ত কমিটি গঠন করে দিয়েছি। ওরা সুষ্ঠু তদন্ত শেষে দ্রুত প্রতিবেদন জমা দিতে বলা হয়েছে। এমনটি হওয়ার কথা না। আচ্ছা আমি বিষয়টা দেখব। আমি ওদের ফোন দিয়ে বলে দিব।

প্রসঙ্গত, গত ১৬ মার্চ বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষের সব বিভাগের শিক্ষার্থীরা মিলে বাংলা মঞ্চে অবতরণিকা উৎসব পালন করে। এ সময় টি-শার্ট বিতরণকে কেন্দ্র ব্যবস্থাপনা বিভাগের তাসিন ইসলাম রাহিন, রাব্বি ফকির এবং ল অ্যান্ড ল্যান্ড ম্যানেজমেন্ট বিভাগের মোবারক হোসেন আশিকসহ মার্কেটিং বিভাগের বেশ কয়েকজন শিক্ষার্থীরা ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগের শিক্ষার্থী ও প্রতিদিনের বাংলাদেশের প্রতিনিধি রানা আহমেদ অভি, মুশফিকুর রহমান এবং সাব্বির শাওনের ওপর অতর্কিত হামলা চালায়। পরে আহতদের বিশ্ববিদ্যালয়ের মেডিকেলে ভর্তি করা হয়। এ ঘটনায় আহত শিক্ষার্থীদের পাশাপাশি অভিযুক্তরাও প্রক্টর ও ছাত্র উপদেষ্টা বরাবর অভিযোগ দেন।

আজকের বাংলাদেশhttps://www.ajkerbangladesh.com.bd/
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।
RELATED ARTICLES
- Advertisment -

Most Popular

Recent Comments