বাংলাদেশ ডেস্ক: ইতালির দক্ষিণের সিসিলি শহরের কাতানিয়ায় মাউন্ট এটনা আগ্নেয়গিরির অগ্ন্যুৎপাত শুরু হয়েছে। প্রায় ১০ হাজার ফুট উঁচু এই আগ্নেয়গিরি থেকে নির্গত হচ্ছে লাভা। ঝুঁকি এড়াতে বন্ধ করে দেয়া হয়েছে স্থানীয় বিমানবন্দর। করোনার কারণে এ দৃশ্য দেখতে তেমন একটা উপস্থিতি নেই দর্শনার্থীদের।

ইতালির দক্ষিণের সিসিলি’র কাতানিয়ায় মাউন্ট এটনা আগ্নেয়গিরির অগ্ন্যুৎপাত শুরু হয়েছে মঙ্গলবার থেকে। বরফে ঢাকা প্রাকৃতিক আগ্নেয়গিরিটি থেকে এ বছর তীব্রভাবে অগ্ন্যুৎপাত হচ্ছে।

ভয়াবহতা থাকলেও সৌন্দর্যও কম নয় এর। স্থানীয় নাগরিকদের কাছে এটি সৌন্দর্যের আধার। ঝুঁকি এড়াতে বন্ধ করে দেয়া হয়েছে কাতানিয়া বিমানবন্দর। তবে এটি এখনও অতিমাত্রায় বিপদজ্জনক নয় বলে জানিয়েছেন স্থানীয় বিশেষজ্ঞরা।

কাতানিয়া শহর থেকে বহু দূরে পাহাড়ের চূড়ায় অবস্থিত এই আগ্নেয়গিরি। ইউরোপের মধ্যে সবচেয়ে বেশি সক্রিয় এই আগ্নেয়গিরি দেখতে বহু পর্যটকের সমাগম ঘটে। গ্রীষ্মকালে পর্যটকদের কাছাকাছি যাতায়াত বন্ধ থাকলেও, শীতকালে খুলে দেয়া হয়।

ইতালিতে তিনটি প্রধান সক্রিয় আগ্নেয়গিরির মধ্যে এটি অন্যতম। প্রায় ১০ হাজার ফুট উঁচু এই আগ্নেয়গিরি। এটি আফ্রিকা প্লেট ও ইউরোশিয়া প্লেটের মধ্যবর্তী স্থানে অবস্থিত। ২০১৩ সালে ইউনেস্কো এটিকে বিশ্ব ঐতিহ্যবাহী স্থানের স্বীকৃতি দিয়েছে।