গঙ্গাচড়ায় ছিনতাই করার সময় ৩ ছিনতাইকারী আটক

পূর্ণ রায় রিপন: রংপুরের গঙ্গাচড়ায় যাত্রীবেশে অটো ছিনতাই করার সময় জনতার হাতে ৩ ছিনতাইকারী আটক হয়েছে। পরে খবর পেয়ে পুলিশ তাদেরকে জনতার কবল থেকে উদ্ধার করে থানায় আনে। এ ঘটনায় ছিনতাইকারীদের বিরুদ্ধে দ্রুত বিচার আইনে থানায় মামলা দায়ের হয়েছে। থানা পুলিশ ও অটো চালক জানায় রংপুর সদর থানার উত্তর খলেয়া পূর্বপাড়া গ্রামের আমিনুর রহমানের ছেলে লিটন মিয়া দীর্ঘদিন থেকে ভাড়া অটো চালিয়ে সংসারের খরচ বহন করে। গত শুক্রবার রাত ৮ ঘটিকার সময় রংপুর মেডিকেল কলেজ মোড়ে সে অটো নিয়ে অপেক্ষা করার সময় রংপুর কোতয়ালী থানার পাঁকার মাথা জুম্মাপাড়া এলাকার জয়নাল মিয়ার ছেলে রাব্বি ওরফে আল আমিন (২১), আপেল মাহমুদের ছেলে রিফাত মিয়া (১৯), জয়নাল মিয়ার ছেলে মোস্তফা (১৯), পিতা অজ্ঞাত রওশণগঞ্জ কুটিপাড়া গ্রামের রিপন (১৯), পিতা অজ্ঞাত হনুমান তলা গ্রামের নুরুন্নবী (২০), পরশুরাম থানার ময়েনপুর কদম তলা গ্রামের রায়হান মিয়ার ছেলে মাসুদ মিয়া ওরফে মোখছেদুল (১৯) তারা সকলেই নীলফামারী জেলার কিশোরগঞ্জ উপজেলার মাগুরা যাওয়ার জন্য লিটন মিয়ার অটো ভাড়া নেয়। পথিমধ্যে রাত ৯ টায় অটোটি উপজেলার বেতগাড়ী ইউনিয়নের চন্দনেরহাটের নিকটবর্তী ফাঁকা জায়গায় পৌঁছিলে অটোতে থাকা সকলেই চালক লিটন মিয়ার গলায় ছুড়ি লাগিয়ে অটোটি ছিনতাই করার চেষ্টা করে। এ সময় অটো চালকের সাথে ছিনতাইকারীদের ধস্তাধস্তি শুরু হয়। ধস্তাধস্তির এক পর্যায়ে অটো চালক লিটন মিয়া চিৎকার শুরু করলে পথচারীসহ আশপাশের লোকজন ঘটনাস্থলে এসে ছিনতাইকারী রাব্বি, রিফাত ও মাসুদকে আটক করে। জনতার উপস্থিতি টের পেয়ে অন্যান্য ছিনতাইকারীরা পালিয়ে যায়। এ ব্যাপারে গঙ্গাচড়া মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মশিউর রহমান জানান আটক ও পলাতক ছিনতাইকারীদের বিরুদ্ধে দ্রুত বিচার আইনে মামলা দায়ের হয়েছে। আটককৃতদের জিজ্ঞাসাবাদ শেষে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। পলাতকদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।