রায়পুরে নিখোঁজ ১১ ঘন্টা পর যুবকের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

তাবারক হোসেন আজাদ: বাবার সাথে অভিমান করে ঘর থেকে বের হয়ে নিখোঁজের ১১ ঘন্টা পর মোঃ রাসেল (২৫) নামের এক যুবকের মৃত দেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। ঘটনাটি ঘটেছে বুধবার সকালে (২৬ আগষ্ট) লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে দক্ষিন চরবংশী ইউপির চরলক্ষি গ্রামের সেকান্তর মাঝি বাড়িতে। নিহত যুবক একই গ্রামের সেকান্তর মাঝির মেজো ছেলে।
সকাল ১১ টায় ওই যুবকের মৃতদেহ সদর হাসপাতালে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে এবং ফাঁড়ি থানায় অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।

নিহতের পরিবার ও প্রত্যক্ষদর্শী কয়েকজন গ্রামবাসি জানান, নিহত যুবক রাসেল প্রায় তিন বছর ঢাকার একটি গার্মেন্টে কাজ করতেন। করোনায় লকডাউনের কারনে গ্রামে এসে বাবার জমিতে কৃষি কাজ করতেন। তার স্ত্রী ও এক সন্তান থাকার পর সন্তানটি মারা যায়। গত কয়েকদিন ধরে বাবার সকল সম্পদ তার নামে লিখে দিতে চাপসৃষ্টি করে আসছিলো সে। মঙ্গলবার সন্ধায় (২৫ আগষ্ট) বাবার সাথে একই বিষয় নিয়ে কথা কাটাকাটি অতঃপর অভিমান করে ঘর থেকে বের হয়ে যায় রাসেল। পরদিন বুধবার (২৬ আগষ্ট) সকাল ১১ টায় বাড়ীর মেহগনি গাছের সাথে গলায় দড়ি বাঁধা অবস্থায় রাসেলের মৃতদেহ ঝুলতে দেখে পুলিশকে খবর দেয় গ্রামবাসী।

এঘটনায় নিহত রাসেলের পরিবারের শোকের মাতম বিরাজ করায় বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।

এঘটনায় দক্ষিন চরবংশি ইউপি সদস্য শাহজাহান মোল্লা ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান, বাবার সকল সম্পদ ছয় ভাই-বোনকে বাদ রেখে রাসেলের নামে লিখে না দেয়ায় সে আত্নহত্যা করেছে। পরিবারের সাথে আমরাও মর্মাহত।

রায়পুর থানার ওসি আবদুল জলিল বলেন, নিহত যুবক রাসেলের মৃত দেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্ত করতে সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। রিপোর্ট আসলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।