ফিরোজ সুলতান: অবশেষে ঠাকুরগাঁওয়ে মামার বাসা থেকে আটক হয়েছে আলোচিত ভয়ংকর গৃহকর্মী রেখা আখতার (২৮)। বৃদ্ধা গৃহকর্ত্রীকে বিবস্ত্র করে নির্যাতনের ঘটনার পরই ঢাকা ছেড়ে পালিয়ে ছিলেন ঠাকুরগাঁওয়ে।

বুধবার (২০ জানুয়ারী) গভীর রাতে ঢাকা মেট্রোপেলিটন পুলিশ (ডিএমপি)র একটি দল জেলার রানীশংকৈল উপজেলার কাশিপুর এলাকা মামা কফিল উদ্দিনের বাসা থেকে তাকে আটক করা হয় বলে নিশ্চিত করেছেন ঠাকুরগাঁও পুলিশ সুপার জাহাঙ্গীর আলম।

গ্রেফতারকৃত রেখা আখতার (২৮) বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার বড় পলাশবাড়ী গ্রামের আফা হোসেনের মেয়ে।

ঠাকুরগাঁও পুলিশ সুপার জাহাঙ্গীর আলম জানান, প্রথমে নীলফামারি জেলার ডেমরায় আশ্রয় নেয় রেখা। এরপর নিরাপদ আশ্রয়ের জন্য পালিয়ে আসে ঠাকুরগাঁওয়ে মামার বাসায়। বুধবার গভীর রাতে বিশেষ টেকনোলোজির মাধ্যমে ঢাকা থেকে আগত পুলিশের একটি টিম বালিয়াডাঙ্গী ও রানীশংকৈল উপজেলায় অভিযান চালায়। এসময় রানীশংকৈল উপজেলার সীমান্তবর্তী কাশিপুর এলাকায় তার মামার বাসা থেকে থেকে তাকে আটক করা হয়।

উল্লেখ্য, ঢাকার মালিবাগে বিলকিস বেগমের মেঝ মেয়ে মেহবুবা জাহান বুলবুলির বাসায় ১ বছর কাজ করে রেখা। গত ৭ জানুয়ারি কাজ ছেড়ে দিয়ে অন্য জায়গায় চলে যায় । ১৬ জানুয়ারি সার্বক্ষণিক থাকার কথা বলে ফিরে আসেন এ বাসায়। এর দুদিন পর বাসায় কেউ না থাকার সুযোগে গৃহকত্রী বিলকিস বেগমকে নির্মম নির্যাতন করে নগদ টাকা, স্বর্ণসহ টিভি ও মোবাইল নিয়ে পালিয়ে যায় রেখা।