বাংলাদেশ প্রতিবেদক: মুলাদীতে জমি বিরোধের জেরধরে হামলা চালিয়ে ভাঙ্গচুর ও লুটপাট করেছে প্রতিপক্ষরা। শুক্রবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে উপজেলার সফিপুর ইউনিয়নের চরপদ্মা গ্রামের আলমগীর খানের বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। এসময় কমপক্ষে ১০জন আহত হয়েছে। হামলা আহত মামুন খান জানান, আলমগীর খানের সাথে একই বাড়ির মৃত হাসেম খানের পুত্র মিজান খানের জমি নিয়ে দীর্ঘ দিন ধরে বিরোধ চলে আসছে। শুক্রবার সন্ধ্যায় আলমগীর খান গ্রুপের জাহাঙ্গীর খানের পুত্র শাহীন খান চরপদ্মা স্কুলের হাটে গেলে জমি বিরোধের জেরধরে মিজান খানের ভাই আলী খান তাকে মারধর করে। বিষয়টি শাহীন খান মোবাইল ফোনে তার স্বজনদের অবহিত করলে তাঁরা মিজান খানের লোকজনের কাছে মারধরের কারণ জানতে চান। এতে মিজান খান ক্ষিপ্ত হয়ে ১০/১৫ জন লোক ও দেশিয় অস্ত্র নিয়ে আলমগীর খানের বাড়ি-ঘরে হামলা চালিয়ে ব্যাপক ভাঙ্গচুর ও লুটপাট চালায়। এসময় তাঁদের বাধা দিলে হামলাকারীরা মামুন খান, মাসুম খান, আয়শা, শাহ আলম খানসহ ১০জনকে কুপিয়ে ও পিটিয়ে রক্তাক্ত জখম করে। হামলাকারীর মামুন খানের বাড়ির ২টি ঘর কুপিয়ে আসবাবপত্র ভাঙ্গচুর করে এবং নগদ টাকা, স্বর্ণাংলকারসহ বিভিন্ন মালামাল লুট করে। আহতদের ডাকচিৎকারে পাশ্ববর্তী বাড়ির লোকজন এসে তাদের উদ্ধার করে শুক্রবার রাতেই মুলাদী হাসপাতালে ভর্তি করেন। এদের মধ্যে মাসুদ খান ও শাহ আলম খানের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় কর্তব্যরত চিকিৎসক রাতেই তাদের বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে প্রেরণ করেন। এঘটনায় মামুন খান বাদী হয়ে মিজান খানসহ ১০জনকে আসামী করে মুলাদী থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন। এব্যাপারে মুলাদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এসএম মাকসুদুর রহমান জানান, অভিযোগ পেয়েছি। আসামীদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

Previous articleপাঁচবিবিতে ১১৫ বোতল ফেন্সিডিল, ১ কেজি গাঁজা ও ২টি মোটরসাইকেলসহ আটক ২
Next articleমুলাদীতে কলেজ ছাত্রসহ ২ ভাইকে কুপিয়ে জখম
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।