জয়নাল আবেদীন: কিস্তি পরিশোধের অব্যাহত চাপ সহ্য করতে না পেওে গলায় ফাঁস দিয়ে এক যুবক আত্মহত্যা করেছেন। এই ঘটনা এঙ্গলবার রাতে রংপুরের কাউনিয় উপজেলার কুর্শা ইউনিয়নের মীরবাগ বাজারে। ওই যুবকের নাম সুমন মিয়া মহেশা গ্রামের মোস্তাফিজুর রহমানের ছেলে।

পুুলিশ ,পরিবার ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, ফার্নিচার ব্যবসার জন্য সুমন একাধিক এনজিও থেকে কয়েক লাখ টাকা ঋণ গ্রহণ করেন। এ জন্য প্রতি মাসে তাকে ৪০ হাজার টাকার মতো কিস্তি দিতে হয়। করোনা পরিস্থিতিতে ব্যবসা মন্দা থাকায় কিস্তির চাপ বেড়ে যায়। এ কারণে তার মধ্যে হতাশা কাজ করছিল। মঙ্গলবার রাত ৮টার দিকে সুমন মীরবাগ বাজারে তার দোকানের পেছনের গোডাউনে ফাঁস দেয়। পরে দোকানের কর্মচারীরা বিষয়টি টের পেয়ে তাকে উদ্ধার করে স্থানীয় পল্লীচিকিৎসকের কাছে নিয়ে যান। পরে পল্লীচিকিৎসকের পরামর্শে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পথে মারা যান সুমন। পল্লীচিকিৎসক মুকুল মিয়া বলেন, ফাঁস দেওয়া অবস্থায় ঘটনাস্থলেই সুমনের মৃত্যু হয়েছে । পরিবারকে সান্তনা দিতেই রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়। কাউনিযা থানা পুলিশের পরিদর্শক সেলিমুর রহমান বলেন, এ ঘটনায় থানায় একটি ইউডি (অপমৃত্যু) মামলা হয়েছে। পরিবারের অভিযোগ না থাকায় মুচলেকা নিয়ে মরদেহ ময়নাতদন্ত ছাড়াই হস্তান্তর করা হয়েছে। তবে কিস্তির চাপের বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে

Previous articleনোয়াখালীতে ইয়াবাসহ পুলিশ কনস্টেবল গ্রেফতার
Next articleদেশে করোনায় গত ২৪ ঘণ্টায় বেড়েছে মৃত্যু, কমেছে শনাক্ত
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।