বাংলাদেশ প্রতিবেদক: পাইকগাছা থানা পুলিশ উপজেলার কপিলমুনির সলুয়া এলাকার একটি ডোবা থেকে এক যুবকের (৩৪) লাশ উদ্ধার করেছে। ধারণা করা হচ্ছে, কে বা কারা তাকে হত্যা করে ডোবায় লাশ ফেলে রেখে গেছে।

থানা পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, সলুয়ার নফেল মোড়লের ছেলে আছাদুল মোড়ল (৩৫) প্রতিদিনের মতো শনিবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে নিজ ক্ষেতের দিকে যাচ্ছিলেন। একপর্যায়ে ক্ষেতের পূর্ব পাশের চিপা ডোবায় উপুড় করা অবস্থায় লাশটি দেখতে পেয়ে চিৎকার দিয়ে প্রতিবেশীদের জানান। এরপর প্রথমে কপিলমুনি পুলিশ ফাঁড়িতে খবর দিলে পৌনে ১১টার দিকে কপিলমুনি পুলিশ ফাঁড়ির এসআই আব্দুল আলীম ও পরে বেলা ১১টার দিকে পাইকগাছা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) জিয়াউর রহমান ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে লাশটি উদ্ধার করেন।

উদ্ধারে সময় লাশের অদূরে পড়ে থাকা একটি জুতা, চানাচুর, বিস্কুট, শ্যাম্পু এবং পকেট টিস্যুর খালি প্যাকেট পড়ে থাকতে দেখে তা আলামত হিসেবে জব্দ করেছে পুলিশ। ধারণা করা হচ্ছে, কে বা কারা তাকে হত্যা করে লাশ ডোবায় ফেলে রেখে গেছে।

জমি মালিক আছাদুল জানায়, আগের দিন শুক্রবারও তিনি ক্ষেতে গিয়ে কাজ করেছিলেন। তবে কোনো লাশ দেখেননি। তবে ক্ষেতের একপাশে বেড়া ভাঙা দেখে ওই দিনই ঠিক করে বাড়ি ফিরেছিলেন। ধারণা করা হচ্ছে, মূল দরজা বন্ধ থাকায় ওই এলাকা ভেঙে ভেতরে ঢোকা হয়। অথচ লাশটি উদ্ধারের সময় তা থেকে দুর্গন্ধ ছড়াচ্ছিল। আানুমানিক ২ থেকে ৩ দিন আগে তাকে হত্যা করে সেখানে লাশ ফেলে রাখা হতে পারে।

ঘটনাস্থলে উপস্থিত স্থানীয় কপিলমুনি ইউপি চেয়ারম্যান মো: কওছার আলী জোয়াদ্দার জানান, স্থানীয়দের কাছে খবর পেয়ে তিনি ঘটনাস্থলে গেছেন। তবে এ ধরনের ঘটনা এলাকায় এটিই প্রথম। এ সময় তিনি আরো জানান, তিনি বা এলাকার কেউ লাশটি শনাক্ত করতে পারেনি।

পাইকগাছা থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) জিয়াউর রহমান জানান, লাশটি উদ্ধার করে সুরতহাল রিপোর্ট সম্পন্ন হয়েছে। লাশের পরিচয় শনাক্তের চেষ্টা চলছে। ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হবে।

Previous articleস্কুলছাত্রীকে শ্লীলতাহানির চেষ্টা, যুবককে গণধোলাই
Next articleবিএনপি একটি উদারপন্থী গণতন্ত্রের জন্য লড়াই-সংগ্রাম করছে: ফখরুল
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।