আবুল কালাম আজাদ: টাঙ্গাইলের কালিহাতী উপজেলার ১২ নং নাগবাড়ী ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামীলীগের বিদ্রোহী প্রার্থী মাকসুদুর রহমান সিদ্দিকীর(আনারস প্রতীক) প্রচারের মাইক ভাংচুর করার অভিযোগ ওঠেছে।এঘটনায় শিশুসহ তিন জন আহত হয়েছে।

আহতরা হলেন, শিশু কন্যা লামিয়া, আবুল কালাম, শাবান আলী।গত সোমবার ইউনিয়নের গান্ধিনা এলাকায় প্রচার চলানোকালে আওয়ামীলীগের স্থানীয় কর্মী- সমর্থকরা এ ঘটনা ঘটায়। এ বিষয়ে প্রতিকার চেয়ে ইউপি নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসারের কাছে প্রার্থী মাকসুদুর রহমান সিদ্দিকী একটি লিখিত অভিযোগ করেছেন।

অভিযোগ সুত্রে জানাগেছে,সোমবার আনারস প্রতীকের প্রচারণার মাইক নিয়ে কর্মী আবুল কালাম ইউনিয়নের বিভিন্ন এলাকার পাকা রাস্তা দিয়ে প্রচার চালাচ্ছিলেন। গান্ধিনা গ্রামে পৌঁছলে আওয়ামীলীগের নৌকা প্রতীকের কয়েকজন কর্মী লাঠিসোঁটা নিয়ে হঠাৎই হামলা চালায়। তারা প্রচারের দুইটি মাইক ভাংচুর করে। বাধা দিতে যাওয়ায় প্রচারকারী আবুল কালামকেও তারা মারপিট করে মোবাইল ফোন ছিনিয়ে নিয়েছে বলে অভিযোগ রয়েছে। হামলাকারীদের লাঠির আঘাতে এ সময় স্থানীয় শহীদুল ইসলামের চার বছরের শিশু কন্যা লামিয়ার মাথায় আঘাতপ্রাপ্ত হয়।পরে আবুল কালাম ও লামিয়াকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়।এছাড়াও শাবান আলী নামে এক কর্র্মীকে পিটিয়ে আহত করা হয়েছে।তাকে কালিহাতী স¦াস্থ কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন আওয়ামীলীগের বিদ্রোহী প্রার্থী মাকসুদুর রহমান সিদ্দিকী। কালিহাতী উপজেলা ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসার ও উপজেলা কৃষি অফিসার মো.সাজ্জাদ তালুকদার জানান,লিখিত অভিযোগ পেয়েছি,অভিযোগটি থানায় পাঠানো হয়েছে।এছাড়াও বিষয়টি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মহোদয়কে জানানো হয়েছে।বিষয়গুলো খতিয়ে দেখে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Previous articleগোমস্তাপুরে আদিবাসী নারীকে ধর্ষণের চেষ্টা
Next articleকলারোয়ায় ফসলি জমি কেটে বালু খেকো আক্তারুলের অবৈধভাবে বালু উত্তোলন ও বিক্রির মহাউৎসব
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।