বাংলাদেশ প্রতিবেদক: কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ীতে স্বামী কর্তৃক স্ত্রীকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে। আগের স্ত্রীর সাথে স্বামীর সম্পর্ক রাখার বিষয় নিয়ে তাদের ঝগড়া গড়ায় এ হত্যাকাণ্ডে। পরে পুলিশ গিয়ে আটক করেছে অভিযুক্ত স্বামীকে।

ঘটনাটি ঘটেছে শুক্রবার রাত ১১টার দিকে উপজেলার নাওডাঙ্গা ইউনিয়নের পূর্ব-ফুলমতি গ্রামে। পুলিশ অভিযুক্ত স্বামীকে গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে আসে। ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে ওই হতভাগা স্ত্রীর লাশ।

জানা গেছে, সাত মাস আগে উপজেলার কুটিচন্দ্রখানা গ্রামের আশরাফ আলীর মেয়ে আফরোজা’র (২৩) সাথে পূর্ব-ফুলমতি গ্রামের আব্দুল জব্বারের ছেলে দেলওয়ার হোসেনের (২৫) পারিবারিকভাবে বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকেই দেলওয়ার নানা অজুহাতে স্ত্রীর উপর অমানুষিক নির্যাতন চালাতো। কিছুদিন আগে স্ত্রী আফরোজা জানতে পারেন যে, আগের তালাক দেয়া স্ত্রীর সাথে দেলওয়ারের সম্পর্ক রয়েছে। এ নিয়ে প্রায়ই তাদের মধ্যে ঝগড়া-বিবাদ হতো।

শনিবার রাত ১১টার দিকে এ বিষয় নিয়ে দু’জনের মধ্যে আবারো কথাকাটাকাটি শুরু হয়। এক পর্যায়ে দেলওয়ার বেদম মারপিট শুরু করলে মোবাইলে মা চায়না বেগমকে মারপিটের কথা জানান আফরোজা। এর কিছুক্ষণ পর দেলওয়ার তার শাশুড়ি চায়না বেগমকে মোবাইল করে জানান, আপনার মেয়ে মারা গেছে, এসে দেখে যান।

পরে খবর পেয়ে ফুলবাড়ী থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ উদ্ধার করে দেলওয়ারকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে।

ফুলবাড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) ফজলুর রহমান জানান, লাশ উদ্ধার করে মর্গে পাঠানো হয়েছে। অভিযুক্ত স্বামী দেলওয়ারকে আটক করা হয়েছে এবং মামলার প্রস্তুতি চলছে।

Previous articleভারী বৃষ্টিপাতে তলিয়ে গেছে সিলেটের বাকিটুকুও, খাদ্য সঙ্কটের আশঙ্কা
Next articleবিল্ডিং ও রঙ্গিন টিন অভিশাপ: কলাপাড়ায় ভূমি অধিগ্রহণে ক্ষতিগ্রস্থদের আর্তনাদ
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।