ফেরদৌস সিহানুক শান্ত: দেশের সবচেয়ে বড় প্রকল্প পদ্মা সেতুর উদ্বোধনী অনুষ্ঠান উপলক্ষে চাঁপাইনবাবগঞ্জ আদালতেও বর্ণাঢ্য অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। শনিবার (২৫ জুন) সকালে এ উপলক্ষে আলোচনা সভা, প্রধানমন্ত্রীর উদ্বোধন দেখা ও বেলুনের সাথে ফেস্টুন উড়ানোসহ নানা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে।

উন্নয়নের অগ্রযাত্রায় বাংলাদেশের সক্ষমতা ও সাহসিকতার প্রতীক স্বপ্নের পদ্মা সেতুর শুভ উদ্বোধনের মাহেন্দ্রক্ষণ উদযাপন শীর্ষক আলোচনা সভার আয়োজন করে বিচার বিভাগ।

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন, চাঁপাইনবাবগঞ্জের জেলা ও দায়রা জজ মোহা. আদীব আলী। আলোচনা সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট কুমার শিপন মোদক। এছাড়াও বক্তব্য রাখেন, অতিরিক্ত চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মো. নুরুজ্জামান সরকার, যুগ্ম জেলা ও দায়রা জজ মো. মাইনু্দ্দীনসহ অন্যান্যরা।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট কুমার শিপন মোদক বলেন, গত ২০-৩০ বছর আগে প্রমত্তা পদ্মায় সেতু নির্মাণ হবে, তা খিব বেশি মানুষ বিশ্বাস করতে পারেনি। কারন এই নদীর অববাহিকায় যাদের বসবাস তারা জানে, সর্বনাশা পদ্মা কতোটা ভয়ংকর। সারাবিশ্বে এমন ভয়ংকর নদী আর খুব বেশি নেই। বিশ্বের অনেক উন্নত দেশও এমন খরস্রোতা নদীতে সেতু নির্মাণের সাহস দেখাতে পারেনি। কিন্তু প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বলিষ্ঠ ও দূরদর্শী নেতৃত্বে নিজস্ব অর্থায়নে পদ্মা সেতু প্রকল্প বাস্তবায়ন সম্ভব হয়েছে। পদ্মা সেতুর সফল বাস্তবায়ন সরকার ও দেশের জনগণের ঐক্যবদ্ধ প্রচেষ্টার ফল বলে উল্লেখ করেন তিনি।

উল্লেখ্য, অনুষ্ঠানে প্রজেক্টর স্ক্রিনের মাধ্যমে পদ্মা সেতু উভয় প্রান্তের উদ্বোধন অনুষ্ঠান প্রথম হতে শেষ পর্যন্ত দেখানো হয়। শেষে জেলা ও দায়রা জজ আদালত ভবন হতে চাঁপাইনবাবগঞ্জ বিচার বিভাগের পক্ষ হতে বেলুনের সাথে ফেস্টুন উড়ানো হয়।

Previous articleপদ্মা সেতুর উদ্বোধন উপলক্ষে ঈশ্বরদী পৌরসভার নানা আয়োজন
Next articleপদ্মা সেতুর উদ্বোধনে শামিল ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।