শফিকুল ইসলাম: নিজের নামে ও ভোগদখলে থাকা জমি ভুলক্রমে পর্চায় নাম ওঠায় সেই জমি থেকে উচ্ছেদেরe চেষ্টা করে না পাওয়ায় অবশেষে একাধিক মিথ্যা মামলা দেয়ায় বর্তমানে তারা নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন। পরবর্তীতে যেন আর কোন মামলা না হয় সে কারনে মামলা ও হয়রানীর প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন করেছেন ভুক্তভুগী শামছুজ্জামান।

শনিবার দুপুরে জয়পুরহাট প্রেসক্লাবে উপস্থিত হয়ে মিথ্যা ও হয়রানীর প্রতিবাদে সুষ্ঠু বিচার চেয়ে সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য দেন জেলার সদর উপজেলার আমদই ইউনিয়নের পুর্ব সুন্দরপুর গ্রামের বাসিন্দা শামছুজ্জামান।

তিনি বলেন, হাতিগাড়া ও সুন্দরপুর মৌজায় তাদের নিজ নামে ও ভোগদখলে থাকা জমি তারা দীর্ঘদিন থেকে ভোগদখল করে আসছে। তারা জমির খাজনা নিয়মিত পরিশোধ করে আসছেন। সম্প্রতি মৌজার ফাইনাল পর্চায় তাদের নাম আসায় তারা আমাদেরকে জমি থেকে উচ্ছেদের চেষ্টা করছে। আমরা পর্চা সংশোধনের জন্য র‌্যান্ড সার্ভে ট্রাইব্যুনালে মামলাও করেছি। এখন তারা জমি জোরপুর্বক দখলে নেওয়ার জন্য হুমকী-ধামকী, মারপিট, অপহরনসহ বিভিন্ন কাজ করে যাচ্ছে। এমনকি আমরা জমিতে গেলে আমাদের মেরে ফেলা হবে বলে প্রচার করছে। ইতিমধ্যে আমাদের নামে বেশ কয়েকটি মামলাও করেছে। আমরা বর্তমানে মামলার ভয়ে বাড়িতে বসবাস করতে পারছিনা। ব্যাপারটি সর্ম্পকে এলাকাবাসী ও স্থানীয় জনপ্রতিনিধি জানেন। তারা আমাদের নামে জবর দখল, ভয়ভীতি প্রর্দশন ও চাঁদা দাবীর একাধিক মামলা করেছে।

শাহিন-বারিক গংরা আমাদের নায্য অধিকার থেকে বঞ্চিত করার চেষ্টা করছে। তারা শুধু আমাদের নয় অনেক লোকের জমি জবর দখল করছে। আমরা তাদের বিরুদ্ধে মামলা দিতে গেলে পুলিশ প্রশাসন উল্টো আমাদের ধরে জেল হাজতে পাঠাচ্ছে। তাই এসবের বিচার চেয়ে সাংবাদিকসহ সকলের সহযোগিতা কামনা করছি। এসময় তার সাথে উপস্থিত ছিলেন এলাকার সামসুল হক, জিয়াউল হক, গোলাম হাফিজ, শাকিল আহম্মেদসহ অনেকেই।

Previous articleপ্রধানমন্ত্রীর সাথে বৈঠকে বসেছেন ১৩ চা-বাগান মালিক
Next articleদেশকে অকার্যকর ও ব্যর্থরাষ্ট্রে পরিণত করার ষড়যন্ত্র হচ্ছে: শামীম ওসমান
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।