এএসটি সাকিল: ভোলার দৌলতখানে হালিম (২৪) নামে মসজিদের ইমামের ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। সোমবার দিবাগত রাত ২টা, অর্থাৎ মঙ্গলবার রাতে উপজেলার চরখলিফা ইউনিয়নের হাসমত ব্যাপারী বাড়ির মসজিদের ইমামের কক্ষ থেকে ঝুলন্ত অবস্থায় তাঁর মরদেহ উদ্ধার করা হয়। মৃত ইমাম ভোলা সদর থানার ভেলুমিয়া ইউনিয়নের চর চন্দ্র প্রসাদের ফরাজি বাড়ির ফারুক ফরাজির ছেলে।

মসজিদ কমিটির সদস্য মোঃ আলমগীর জানান, নিহত ইমাম চরখলিফা মাদরাসার ছাত্র। একমাস ধরে তিনি তাদের মসজিদে ইমামতি করে আসছে। গত শুক্রবার ছুটি নিয়ে বাড়িতে যায়। গতকাল সোমবার বাড়ি থেকে ফিরে আসে। এশারের নামাজের পর রাতের খাবার খেয়ে তার রুমে গিয়ে ঘুময়ে পড়েন। রাত দুইটার দিকে ডাক চিৎকার শুনে এসে দেখে ইমাম তার কক্ষে নিজের মাথার পাগড়ি দিয়ে ফ্যানের সাথে ঝুলন্ত অবস্থায় আছে। পরে তারা থানা পুলিশকে খরব দিলে পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে মরদেহ উদ্ধার করে নিয়ে যায়। তিনি আরো বলেন গলায় ফাঁস দেওয়ার পূর্বে নিহত ইমাম তার ডায়রীতে চিরকুট লিখে যান। চিরকুটটি দৌলতখান থানা পুলিশ মরদেহের সাথে নিয়ে যায়।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে দৌলতখান থানার অফিসার ইনচার্জ ওসি জাকির হোসেন জানান, মঙ্গলবার ভোরে পুলিশ মরদেহ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। পরিবারের পক্ষ থেকে মরদেহ নেওয়ার দাবি জানায়। তারা মাননীয় ডিসি বরাবর আবেদন করলে আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে মরদেহ তাদেরকে হস্তান্তর করা। তিনি আরো জানান, এ ঘটনায় একটি অপমৃত্যুর মামলা প্রক্রিয়াধীন।

Previous articleইসি ক্ষমতাসীনদের ভাষায় কথা বলছে: জিএম কাদের
Next articleরংপুর সিটির ৩৩টি ওয়ার্ডে নির্মাধীন বাদে ৪১ হাজার পরিবার করের আওতায়
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।