শনিবার, ফেব্রুয়ারি ২৪, ২০২৪
Homeসারাবাংলাকর্মসৃজন-কর্মসূচী প্রকল্পে অতিদরিদ্রের নামের পরিবর্তে চাকুরিজীবি, ব্যবসায়ীর নাম

কর্মসৃজন-কর্মসূচী প্রকল্পে অতিদরিদ্রের নামের পরিবর্তে চাকুরিজীবি, ব্যবসায়ীর নাম

পীরগাছা  প্রতিনিধিঃ রংপুরের পীরগাছায় অতিদরিদ্রদের জন্য ৪০ দিনের কর্মসৃজন-কর্মসুচি প্রকল্পের নামের তালিকায় চাকুরিজীবি, ব্যবসায়ী এবং ইউপি সদস্যের ভাই ও ভাগ্নীসহ সম্পদশালীদের অন্তর্ভূক্ত করার অভিযোগ উঠেছে।

অতিদরিদ্রের পরিবর্তে যাদের অন্তর্ভূক্ত করা হয়েছে তারা কাজ না করলেও দৈনিক মজুরি ঠিকই নিচ্ছেন। ফলে প্রকল্প বাস্তবায়ন ভেস্থে যেতে বসেছে।

জানা যায়, ২০২৩-২৪ অর্থ বছরে গ্রামীন অবকাঠামো উন্নয়নে ৪০ দিনের কর্মসৃজন-কর্মসুচি প্রকল্পের আওতায় উপজেলায় প্রায় ৩ হাজার শ্রমিকের বিপরীতে প্রায় ৫ কোটি টাকা বরাদ্দ দেয় সরকার। উপজেলার ৯ ইউনিয়নে ৮১ প্রকল্পে প্রায় তিন হাজার অতিদরিদ্র শ্রমিক কাজ করবেন।

অতিদরিদ্রদের কর্মসংস্থানের জন্য ৪০ দিনের কর্মসূচিতে অজ্ঞাত কারনে স্থানীয় মেম্বারের ভাই-বোন, নিকট আত্মীয়স্বজন, অনুসারি সম্পদশালী ও সম্পূর্ণ স¦চ্ছল ব্যক্তিদের শ্রমিক হিসেবে অন্তর্ভূক্ত করার অভিযোগ উঠেছে।

শনিবার তাম্বুলপুর, ছাওলা ও পারুল ইউনিয়নের বেশ কয়েকটি প্রকল্প ঘুরে দেখা যায় সুবিধা ভোগীদের অল্প কয়েকজন করে কাজ করছেন, বাকীরা নাই কর্মস্থলে। এই প্রকল্পগুলিতে অতিদরিদ্রদের নাম থাকার কথা থাকলেও অনেকেই সম্পদশালী, চাকুরিজীবি, ব্যবসায়ী ও স্থানীয় ইউপি সদস্যের ভাই-বোন, ভাগ্নী এবং নিকট আত্মীয়দেরকে অন্তর্ভূক্ত করা হয়েছে। এ জন্য সুবিধাভোগী জনবল অনুযায়ী কাজ বাস্তবায়ন হচ্ছে নামমাত্র। তন্মধ্যে পারুল ইউনিয়নের ৮ নম্বর ওয়ার্ডের চিত্র একেবারেই ভিন্ন।

পূরব পারুল কানিপাড়া নামক এলাকায় গিয়ে দেখা যায় ৩৮ জন এর স্থলে মাত্র ২২ জন শ্রমিক কাজ করছেন। অনুপস্থিত রয়েছে ১৬ জন। অনুপস্থিতদের মধ্যে ইউপি সদস্য আব্দুল খালেক @ হেলালের ভাই ৪ জন আব্দুল আজিজ, বেল্লাল হোসেন, হাবিবুর রহমান, আব্দূল মালেক, নিকট আত্মীয় মর্জিনা বেগম, ভাগ্নী সাজেদা বেগম, স্কুলের চাকুরিজীবি লিটন সিকদার, খোরশেদ, দোলন, রশিদ মিয়া, সম্পদশালী দুলাল হোসেন, দেলোয়ার হোসেন, মোস্তফা মিয়া, বকুল, জাহানারা ও হাফিজুর। এই অনুপস্থিতদের সকলেই সম্পদশালী, ব্যবসায়ী অথবা চাকুরিজীবি তাই তারা কাজ করেন না। গোপন সংবাদে জানা যায় দেলোয়ার হোসেন ও জাহানারা বেগম এর নামের আর্থিক সুবিধা ভাগাভাগি করে মেম্বার নিজে ভোগ করেন।

একই ইউনিয়নের ৫ নং ওয়ার্ডের সুবিধাভোগীর তালিকায় আজেদা বেগম, স্বামী জয়নাল এর নাম থাকলেও কাজ করতে দেয়া হচ্ছে না। বরং তার পরিবর্তে অন্য একজনকে দিয়ে কাজ করানো হচ্ছে।

কাজ বঞ্চিত আজেদা বলেন, আমার নাম তালিকাভূক্ত করার সময় নুর মোহাম্মদ মেম্বারকে ৪ হাজার টাকা দিতে বাধ্য করা হয়েছে। চলমান কাজের সময় আমার কাছে আবারো ৪ হাজার টাকা দাবী করা হয়েছিল। আমি টাকা দিতে পারি নাই, এজন্য আমাকে কাজ করতে দিচ্ছে না। নুর মোহাম্মদ মেম্বারের কথায় আমাকে শ্রমিক সর্দার আংগুর ও আব্দুল জব্বার কাজ করতে দিচ্ছে না। ওই ওয়ার্ডে বেশ কয়েকজন শ্রমিক হিসেবে কাজ করছেন, তাদের নাম সুবিধাভোগির তালিকায় নাই বলে কর্মরত শ্রমিকরা বলেন। অপর দিকে তাম্বুলপুর ইউনিয়নের ৫ নং ওয়ার্ডে খোঁজ নিয়ে দেখা যায় তালিকাভূক্ত শ্রমিক জাহানারা বেগমকে স্থানীয় ইউপি সদস্য শাপিন মিয়া অজ্ঞাত কারনে কাজ করতে দিচ্ছেন না। অথচ শাপিন মিয়ার আত্মীয় শিরিনা বেগম, পরিতোষ ও আলতাব কাজ করেন না। মুনছুর আলী অসুস্থতার কথা বলে কর্মসৃজনের কাজ না করলেও অন্যের কাজ করেন আর টাকা ভাগাভাগি করে নেন বলে অভিযোগ উঠেছে। এভাবে উপজেলার ৯ টি ইউনিয়নেই অতিদরিদ্র শ্রমিকদের নিয়ে ব্যপক অসংগতি আছে। সংশ্লিস্ট কর্তৃপক্ষের তদারকির অভাবে এই অসংগতির সমাধান হচ্ছে না।

পারুল ইউনিয়নের ৮ নং ওয়ার্ড সদস্য আব্দুল খালেক @ হেলাল বলেন, নিজের লোকদেরকে দিয়ে কাজ করাতে হয়। আপনি চেয়ারম্যানের সাথে কথা কন। আমি এখন অফিসে আছি। একই ইউনিয়নের ৫ নং ওয়ার্ড সদস্য নুর মোহাম্মদকে ফোন দেয়া হলে সাংবাদিক পরিচয় পেয়ে কোন মন্তব্য না করে বলেন, আমি আপনাকে পরে ফোন দিচ্ছি।

তাম্বুলপুর ইউনিয়নের ৫ নং ওয়ার্ড সদস্য শাপিন মিয়ার সাথে কথা হলে তিনি বলেন, জাহানারার নাম কর্তনের জন্য প্রস্তাব পাঠানো হয়েছে। শিরিনা বেগম, পরিতোষ ও আলতাব এর বিষয়ে কোন মন্তব্য করতে রাজি হননি।

গ্রামীন অবকাঠামো উন্নয়নে ৪০ দিনের কর্মসৃজন-কর্মসুচি প্রকল্পের তদারকির দায়িত্বে থাকা ৯ ইউনিয়নের কর্মকর্তাগণ কেউ তদারকি না করলেও তারা নিয়মিত টিএডিএ নিয়ে থাকেন বলে একটি সুত্রে জানা যায়। উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা আব্দুল আজিজ বলেন, এ ধরণের অনিয়ম হলে তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

আজকের বাংলাদেশhttps://www.ajkerkagoj.com.bd/
Ajker Bangladesh Online Newspaper, We serve complete truth to our readers, Our hands are not obstructed, we can say & open our eyes. County news, Breaking news, National news, bangladeshi news, International news & reporting. 24 hours update.
RELATED ARTICLES
- Advertisment -

Most Popular

Recent Comments