সুশান্তের মামলায় সালমান-করণ-বনসালিসহ আসামি ৮, কুশপুত্তলিকা দাহ

বাংলাদেশ ডেস্ক: বলিউডের প্রতিভাবান অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুতে শোকস্তব্ধ গোটা ভারত। অনেকেরই অভিযোগ তাকে ঠেলে দেওয়া হয়েছে মৃত্যুর দিকে। এরই মধ্যে সুশান্তের আত্মহত্যার ঘটনায় সালমান খান, করণ জোহর, একতা কাপুর ও পরিচালক সঞ্জয় লীলা বনসালিসহ আটজনকে আসামি করে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

ভারতীয় একটি গণমাধ্যমে বলা হয়, বিহারের মজফফরপুরের একটি আদালতে সুধীর কুমার ওঝা নামে এক আইনজীবী এই মামলা দায়ের করেছেন। যদিও মামলাটি আদালতে গৃহীত হয়েছে কিনা এবং আট জনের পুরো তালিকায় কারা কারা রয়েছেন এ ব্যাপারে কোন তথ্য তারা প্রকাশ করেনি।

তবে এই প্রথম নয় এই আইনজীবী এর আগেও তারকাদের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন। গত বছরেই ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে অসহিষ্ণুতা নিয়ে চিঠি লেখেন অপর্ণা সেন, রামচন্দ্র গুহ, নাসিরুদ্দিন শাহ’রা। তাদের বিরুদ্ধেও বিহারের এক আদালতে মামলা করেন এই সুধীর কুমার।

সুশান্ত সিং রাজপুত’র আত্মহত্যার ঘটনায় মুম্বাই পুলিশের তদন্তে এখনও কিছু প্রমাণিত হয়নি। কিন্তু সুশান্ত’র আত্মহত্যার পিছনে যে স্বজনপোষণের কারণ রয়েছে, এই অভিযোগে অনুরাগীদের সমস্ত ক্ষোভ গিয়ে পড়েছে সালমান খান, করণ জোহর, আলিয়া ভাট, সোনম কাপুরদের মতো বলিউড তারকাদের উপর। বিশেষ করে সালমান খান আর করণ জোহরেরই উপর বেশি ক্ষুব্ধ সুশান্ত-ভক্তরা। পাটনার রাস্তায় পোড়ানো হচ্ছে বলিউডের এই তারকাদের কুশপুত্তলিকা।

কথিত আছে বলিউডে স্বজনপ্রীতি বা নেপোটিজম খুব সাধারণ একটা বিষয়। প্রাক্তন বা বর্তমান তারকাদের সন্তানেরা বলিউড ইন্ডাস্ট্রিতে যেভাবে সুযোগ পান, বাইরে থেকে আসা ছেলেমেয়েরা হাজার চেষ্টা করেও সেই জায়গায় পৌঁছতে পারেন না। সুশান্তের বাবা মুম্বাই পুলিশকে স্পষ্ট জানিয়েছেন, বলিউডে কাজ করা নিয়ে গভীর চিন্তায় ছিল সুশান্ত। বারবার বলত মূলত বলিউডে টিকে থাকা ও কাজ পাওয়া নিয়ে চিন্তা হয়। এই কথা শুনে আমি ওর সঙ্গে মুম্বাইতে থাকার কথা বলি, কিন্তু ও বারবার বলত খুব শীঘ্রই সব ঠিক হয়ে যাবে।