বুধবার, এপ্রিল ১৭, ২০২৪
Homeবিনোদনরাত ৩টায় তাপসের বাথরুমে লুকিয়ে ছিলেন বুবলী: তাপস-বুবলীর পরকীয়ার সত্যতা ফাঁস

রাত ৩টায় তাপসের বাথরুমে লুকিয়ে ছিলেন বুবলী: তাপস-বুবলীর পরকীয়ার সত্যতা ফাঁস

বাংলাদেশ প্রতিবেদক: সংগীতশিল্পী ও গানবাংলা টেলিভিশনের প্রধান নির্বাহী কৌশিক হোসেন তাপস ও চিত্রনায়িকা বুবলীর মধ্যে পরকীয়া প্রেমের সম্পর্কের সত্যতা মিলেছে। তাপসের স্ত্রী ফারজানা মুন্নি ও চিত্রনায়িকা অপু বিশ্বাসের কথোপকথনের ভাইরাল হওয়া একটি অডিও রেকর্ডে এই সত্যতা উঠে আসে।

এর কয়েকদিন আগে তাপসের স্ত্রী মুন্নি তার ফেসবুক আইডিতে তাপস-বুবলীর পরকীয়া প্রেম নিয়ে একটি স্টাটাস দেন। কিন্তু কয়েক ঘণ্টা পর তা ডিলিট করে জানান, তার ফেসবুক আইডি হ্যাক হয়েছিল। বিষয়টির রেশ না কাটতেই শুক্রবার রাত থেকে স্যোশাল মিডিয়ায় বুবলী-তাপসের প্রেম নিয়ে ফারজানা মুন্নি ও চিত্রনায়িকা অপু বিশ্বাসের কথোপকথনের একটি অডিও রেকর্ড ভাইরাল হয়।

১৩ মিনিট ৫৪ সেকেন্ডের ফোনালাপটি কয়েকটি ফেসবুক পেজে দেখা গেছে। তবে কথোপকথনে অপু বিশ্বাসের কথাগুলো কেটে দেয়া হয়েছে। শুধু ফারজানা মুন্নির কণ্ঠ শোনা গেছে। তবে তিনি যে অপু বিশ্বাসের সাথেই কথা বলছিলেন, সেটা বোঝা যায় কথার মাঝখানে তার নাম ধরে ডাকা থেকে।

ভাইরাল অডিওতে মুন্নি বলেছেন, তাপস-বুবলীর প্রেম নিয়ে সেই পোস্টটি নিজেই দিয়েছিলেন। তার ফেসবুক আইডি হ্যাক হয়নি। ফাঁস হওয়া কল রেকর্ডে ফারজানা মুন্নি বলেন, ‘আমি ফেসবুকে স্ট্যাটাস দেয়ার পর তাপসের সাথে আমার পরিবারের সবাই বসেছিল। দেখো অপু, আমি তো এখনো সংসার করি। তাপস তো এখনো আমার জামাই। তার পর যখন আমাকে বলল, এটা দাও (ফেসবুক আইডি হ্যাকের স্ট্যাটাস), তখন আমি এটা দিলাম। আমার কোনো কিছু হ্যাক হয় নাই, শুধু স্ট্যাটাসটা হ্যাক হইছে, তাই না?’

যে রাতে ফেসবুকে স্ট্যাটাসটি দিয়েছিলেন, তখন তাপসের সাথে বুবলী গানবাংলা টেলিভিশনের অফিসে একান্তে সময় কাটাচ্ছিলেন বলে ওই ফোনালাপে জানান মুন্নি।

তিনি বলেন, ‘এই তাপসকে আমি চিনতেছি না। তাপস যদি এই মেয়েকে বলে এখন সোজা হয়ে দাঁড়িয়ে থাকবা, সে কথামতো দাঁড়িয়ে থাকবে। তুমি গানবাংলার সিকিউরিটি গার্ডকে জিজ্ঞেস করো, জানতে পারেব ও (বুবলী) কখন ঢোকে, কখন বের হয়! তুমি জানো না কী হচ্ছে দু’জনের! আমি তোমাকে (অপু বিশ্বাস) বোঝাতে পারব না।’

‘না পেরে শুক্রবার রাত সাড়ে ৩টার দিকে তাপসকে ভিডিওকল করে বলছি, বুবলীকে দাও। আমি জানি ওখানে বুবলী আছে। বাথরুমে লুকিয়ে ছিল সে (বুবলী)। সে বাথরুম থেকে বের হলো। তারপর আমি বললাম, বুবলী তোমার লজ্জা লাগে না? তুমি একটা মেয়ে না? তোমার খারাপ লাগে না? ও (বুবলী) আমার কথা শুনে হাসল। ওই হাসিটা দেখে আমি সহ্য করতে পারিনি। তখনই তো আমি ফেসবুকে পোস্ট দিয়েছি।’

অপুর সাথে কথায় কথায় শাকিব খানের প্রসঙ্গও টানেন মুন্নি। তার দাবি, শাকিবের ওপর প্রতিশোধ নিতে তাপসকে ঢাল হিসেবে ব্যবহার করছেন বুবলী।

তার কথায়, ‘বুবলী শাকিবকে ধ্বংস করবে। ও (বুবলী) তাকে কন্ট্রোল করতে পারছে না। রিভেঞ্জ নিতে চায়। এ জন্য তাপসকে ব্যবহার করতেছে। তাপস এটা বুঝতেছে না। তবে ও একদিন বুঝবে।’

বুবলীর মতো খারাপ মেয়ে কখনো দেখেননি বলেও সেই অডিওতে বলতে শোনা যায় মুন্নিকে। তিনি বলেন, ‘আমি এ রকম খারাপ মানুষ আমার লাইফে দেখি নাই। আমি তো একটা মেয়ে। আমার যথেষ্ট বয়স হয়েছে। তোমরা তো ছোট। দুনিয়ায় অনেক কিছু দেখে আজকে এতদূর আসছি। যেকোনো সংসার ধ্বংস করে দেয়ার জন্য এই মেয়ে এনাফ। এই মেয়ের বিচার কে করবে জানি না। ওর বিচার আল্লাহ করবে।’

বুবলী দিন-রাত গানবাংলা টেলিভিশনের অফিসে পড়ে থাকেন। চ্যানেলটির নিজস্ব গাড়িতে তাকে আনা-নেয়া করা হয় বলেও তাতে জানান মুন্নি।

এ নিয়ে তিনি বলেন, ‘বুবলী কোনো দিন বাসায় থাকে না। কোনো সাংবাদিক দিয়ে ওর বাসার দারোয়ানকে জিজ্ঞেস করো যে, ও কয়টার সময় বের হয় আর কয়টার সময় বাসায় আসে! গানবাংলার গাড়ি কয়টায় ঢোকে, কয়টায় নামিয়ে দিয়ে যায়! আমি হা হয়ে থাকি। কী হচ্ছে এসব! একটা মেয়ে সারাক্ষণ তাপসের সাথে থাকে। ওর মতো ভালো মেয়ে নাকি তাপস কখনো দেখেনি।’

তিনি বলেন, ‘বুবলীকে গানবাংলার গাড়ি নিয়ে আসে। আবার দিয়ে আসে। ও তাপসকে বোঝাতে চাচ্ছে, শাকিব আর তার পরিবার তাদের মিলিয়ে দিতে চাচ্ছে, কিন্তু সে সেটা চাচ্ছে না। এখন শুধু তাপসের বুদ্ধিতে চলবে। দেখো না চুপ করে আছে। কোনো স্টেটমেন্ট দিচ্ছে না।’

ওই কথোপকথনে মুন্নি দাবি করেন, বুবলী এখন তাপসের নির্দেশনায় চলছে। সম্প্রতি শাকিব-অপুর ছেলে জয়ের জন্মদিনে শুভেচ্ছা জানিয়ে একটা ভিডিও প্রকাশ করেছিলেন বুবলী। সেটাও নাকি তাপসের পরামর্শে।

বুবলী ছেলেদের কথার জাদুতে মোহিত করে ফেলেন বলে মনে করেন মুন্নি। নিজে নিজে গল্প বানিয়ে তাপসকে আয়ত্তে নিয়ে এসেছেন।

তবে এ বিষয়ে জানতে অপু বিশ্বাসের ফোনে একাধিকবার কল করা হলেও তা বন্ধ পাওয়া গেছে।

তাপসের স্ত্রী নারী উদ্যোক্তা, গানবাংলা টেলিভিশন ও টিএম নেটওয়ার্কের চেয়ারপারসন ফারজানা মুন্নীর ৪ নভেম্বর (বুধবার) মধ্যরাতে ফেসবুকে দেয়া স্ট্যাটাসে বলেন, ‘তাপস ও বুবলীর মাঝে সম্পর্ক চলছে। বুবলী আমার পরিবার ধ্বংস করছে, যেভাবে করেছে অপু বিশ্বাসের জীবন। শাকিব খানকে ব্ল্যাকমেইল করে প্রেগন্যান্ট হয়েছেন, এখন তার টার্গেট তাপস। যদি আমার কিছু হয়, এর জন্য দায়ী থাকবেন তাপস ও বুবলী।’

এদিকে মুন্নির কথপকথনে গতকাল সোয়া ৩টার দিকে একটি গণমাধ্যমের কাছে লিখিত বার্তা পাঠান বুবলী। এতে বুবলী বলেন, ‘আমাকে নিয়ে যদি কারো এতো সমস্যা থাকে তাহলে অফিসিয়ালি কথা বলুক, প্রমাণসহ কথা বলুক, তখন আমিও আমার কাজের সমস্ত প্রমাণসহ ডেট নিয়ে অফিসিয়ালি কথা বলব সাংবাদিক সম্মেলন করে এবং আইনানুগ ব্যবস্থা নিব। এতো লুকোচুরি করছে কেন?

এতে বলা হয়, ‘একবার জানানো হচ্ছে আইডি হ্যাক করা হয়েছে, আরেকবার সেই আইডি স্ট্যাটাস ডিলিট করা হয়েছে, আবার কীসের কী লিংক নামক অডিও ফাঁস বলা হচ্ছে, সেই অডিও আবার একজনের কথা দিয়ে এক তরফা এডিট করা। অপর পাশ কারা কী কথা বলছে কিংবা কারো দ্বারা ম্যানিপুলেট করা কি না তাও বোঝা যাচ্ছে না।’

বুবলী আরো বলেন, ‘কোনো কনভারসেশনে শুধু একজনের কথা যেখানে রাখা হয়, সেখানে কী উদ্দেশ্য থাকে? আপনারাই বলুন। এমনকি অডিওতে মিম, পরী, মাহি কারো সাথে কথা হলো না, শুধু অপু বিশ্বাসের সাথেই কথা হলো, ব্যাপারগুলো এতো পরিকল্পিত যে আমার বুঝতে বাকি নেই কী নোংরামো হচ্ছে। আমার সন্তান শেহজাদকে সামনে আনার পর থেকে আমার সাথে যা যা হচ্ছে সব আর্কাইভে আপনাদের দেখার অনুরোধ থাকল। আমি শুধু অফিসিয়াল স্টেটমেন্টের জন্য অপেক্ষা করছি, তখন এই সমস্ত কিছুর উত্তর দিব প্রমাণসহ। যারা এসব মিথ্যা প্রোপাগান্ডা ছড়ানোর চেষ্টা করে প্রত্যেকবার তাদের প্রত্যেককে আমি চিহ্নিত করছি।’

আজকের বাংলাদেশhttps://www.ajkerbangladesh.com.bd/
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।
RELATED ARTICLES
- Advertisment -

Most Popular

Recent Comments