কাগজ ডেস্ক: নির্বাচনী প্রতিশ্রুতিতে অধিকৃত পশ্চিমতীরকে ইসরাইলের অন্তর্ভুক্ত করার কথা বলায় অবৈধ ইহুদি রাষ্ট্রটির সমালোচনা করেছেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোগান। তিনি বলেন, তুরস্ক সবসময় ফিলিস্তিনিদের পাশে থাকবে।
তিনি বলেন, ১৯৪৮ সালের পর ইসরাইল যা করেছে, তা আন্তর্জাতিক আইন ও জাতিসংঘের প্রস্তাবের লঙ্ঘন।
রাশিয়া যাওয়ার আগে ইস্তানবুলের কামাল আতাতুর্ক বিমানবন্দরে সাংবাদিকদের তিনি বলেন, পশ্চিমতীর ফিলিস্তিনিদের। ইসরাইলি আরেকটি দখলদাত্বের পদক্ষেপ নিতে যাচ্ছে।
এর আগে ফের নির্বাচিত হলে অধীকৃত পশ্চিমতীরের অবৈধ ইহুদি বসতিকে ইসরাইলের অন্তর্ভুক্ত করার প্রতিশ্রতি দেন ইসরাইলি প্রধানমন্ত্রী নেতানিয়াহু।
প্রধানমন্ত্রী হিসেবে গত পাঁচবারে পশ্চিমতীরে অবৈধ ইহুদি বসতি সম্প্রসারিত গেছেন তিনি।

গত মাসে ইসরাইলের দখল করে নেয়া গোলান মালভূমিকে ইসরাইলের সার্বভৌমত্বে স্বীকৃতি দেয় যুক্তরাষ্ট্র। ১৯৬৭ সালে যুদ্ধের সময় সিরিয়ার এই এলাকাটি দখল করে নিয়েছিল ইসরাইল।
পশ্চিমতীরের বসতিগুলোতে প্রায় চার লাখ ইহুদিকে পুনর্বাসন করেছে ইসরাইল; আরও দুই লাখ ইহুদি পূর্ব জেরুজালেমে বসবাস করছে। অন্যদিকে পশ্চিমতীরে বসবাসকারী ফিলিস্তিনিদের সংখ্যা প্রায় ২৫ লাখ।
ইসরাইল অধিকৃত পশ্চিমতীর, পূর্ব জেরুজালেম ও গাজা ভূখণ্ড নিয়ে একটি রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠা করতে চান ফিলিস্তিনিরা।

Previous articleসোহেলকে কারাগারে ফাঁসির সেলে রাখার অভিযোগ
Next articleবেতন বৃদ্ধির প্রতিবাদে লক্ষ্মীপুরে শিক্ষার্থীদের ক্লাস বর্জন
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।