বাংলাদেশ ডেস্ক: ভারতের মধ্যপ্রদেশে করোনায় স্বজন হারানো পরিবারের সদস্যরা অভিযোগ করেছেন যে তাদের হাতে মরদেহ হস্তান্তর করা হচ্ছে না। বরং তাদের না জানিয়েই দূরে মরদেহ ফেলে দেওয়া হচ্ছে।

রাজ্যটির রাজধানী ভোপাল থেকে ৫৭ কিলোমিটার দূরে বিদিশা জেলা হাসপাতালে এমনই একটি মর্মান্তিক ভিডিও দেখা গেছে।-খবর এনডিটিভির

এতে পরিবারগুলোকে এক ধরনের বিভীষিকাময় পরিস্থিতিতে পড়তে হচ্ছে।

ভিডিওতে দেখা যায়, করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা যাওয়া এক ব্যক্তির মরদেহ নিয়ে হাসপাতাল থেকে একটি অ্যাম্বুলেন্স বেরিয়ে এসেছে।

এরপর হাসপাতালের ফটক পেরিয়ে মোড়ে পৌঁছে মরদেহটি ছুড়ে ফেলে দিয়েছে। অ্যাম্বুলেন্সটির হাড্ডিসার চালককে আতঙ্কগ্রস্ত অবস্থায় দেখা গেছে। গাড়িটির পেছনের কাঁচ ভাঙা।

এরপর দুজন লোক সেখানে দৌড়ে চলে যান। যদিও তখন পিপিই-পরা একজন লোককে অ্যাম্বুলেন্সের ভেতর থেকে উঁকি দিতে দেখা গেছে।

অভিযোগে বলা হচ্ছে, স্বজনদের না জানিয়েই মরদেহ দূরে ফেলে দিয়ে আসছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

গত ২৪ ঘণ্টায় মধ্যপ্রদেশে ১২ হাজার ৩৮৪ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। মারা গেছেন ৭৪ জন।

এদিকে মহামারির দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবিলায় হিমশিম খাচ্ছে ভারত। টানা দ্বিতীয় দিন তিন লাখের বেশি নতুন কোভিড-১৯ রোগী শনাক্ত হয়েছেন।

শুক্রবার সকালে দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটে দেওয়া তথ্যে ২৪ ঘণ্টায় ৩ লাখ ৩২ হাজার ৭৩০ জনের দেহে ভাইরাসের উপস্থিতি শনাক্ত এবং দুই হাজার ২৬৩ রোগীর মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করা হয়।

বৃহস্পতিবার ভারত প্রথমবার একদিনে ৩ লাখের বেশি রোগী শনাক্তের বিশ্বরেকর্ডের কথা জানিয়েছিল; শুক্রবার তারা সেই রেকর্ডও টপকে গেল।

এর আগে জানুয়ারিতে যুক্তরাষ্ট্রের একদিনে সর্বোচ্চ দুই লাখ ৯৭ হাজার ৪৩০ জন নতুন রোগী শনাক্ত হয়েছিল।

Previous articleহেফাজতের দুই নেতা ৯ দিনের রিমান্ডে
Next articleলকডাউন শিথিলের সিদ্ধান্ত শিগগিরই
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।