বাংলাদেশ ডেস্ক: ফ্রান্সের উত্তরাঞ্চলের ওইসের এক মসজিদের নওমুসলিম ইমাম বক্তৃতা দেয়ার সময় জিহাদ নিয়ে বক্তব্য দেয়ার কারণে মসদিজটি বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। ইমাম তার বক্তব্যে ইসলাম ধর্মের জিহাদ ইস্যুতে বক্তব্য দেয়ার কারণে তিনি এ বিষয়টাকে সমর্থন করেছেন বলে অভিযোগ উঠেছে। বুধবার এমন সংবাদ প্রকাশ করেছে বিবিসি।

ফ্রান্সের স্থানীয় কর্তৃপক্ষ বলছে, বুভে শহরে অবস্থিত মসজিদটি ছয় মাসের জন্য বন্ধ থাকবে।

ওইসের কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে যে স্থানীয় এক ব্যক্তি জানিয়েছেন, ইমাম তার বক্তৃতায় ইসলামের ইতিহাসের বিভিন্ন যুদ্ধে নেতৃত্ব দেয়া যোদ্ধাদের ‘বীর’ হিসেবে তুলে ধরেছেন এবং ঘৃণা ও সহিংসতাকে উস্কে দিয়েছেন।

উগ্রবাদের সাথে জড়িত থাকার সন্দেহে ফ্রান্স ইসলামিক স্থাপনাগুলোতে তল্লাশি চালিয়ে যাচ্ছেন।

দু’সপ্তাহ আগে ফ্রান্সের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী জেরাল্ড দারমানিন বলেছেন, তিনি ফ্রান্সের রাজধানী প্যারিসের ১০০ কিলোমিটার উত্তরে বুভে শহরের গ্রেট মসজিদটি বন্ধ করার প্রক্রিয়া শুরু করছেন। এ বিষয়ে তার অভিযোগ মসজিদের ইমাম তার বক্তৃতায় ‘খ্রিস্টান, সমকামী ও ইহুদিদের’ টার্গেট করে বক্তব্য দিয়েছেন।

কর্তৃপক্ষ মসজিদটিকে জবাব দিতে ১০ দিন সময় দিয়েছিল।

এএফপি স্থানীয় সংবাদপত্র কুরিয়ার পিকার্ডকে উদ্ধৃত করে বলেছে, মসজিদের ইমাম সম্প্রতি ইসলাম গ্রহণ করেছেন।

মসজিদ পরিচালনাকারী অ্যাসোসিয়েশনের একজন আইনজীবী সংবাদপত্রটিকে বলেন, তার মন্তব্য প্রাসঙ্গিক হিসেবে গ্রহণ করা হয়নি।

আইনজীবী বলেছেন, ওই ইমাম যিনি ‘স্বেচ্ছায় বক্তৃতা করছিলেন’, তাকে তার দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি দেয়া হয়েছে।

কিন্তু ফ্রান্সের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় বলেছে, ‘ইমামকে একজন অনিয়মিত বক্তা হিসাবে উপস্থাপন করা হয়েছিল, বাস্তবে তিনি একজন নিয়মিত ইমাম হিসাবে কাজ করেন।’ তিনি কঠোরভাবে ইসলামী অনুশাসন চর্চাকে সমর্থন করেন। তিনি ফ্রান্সের আইনে চেয়েও ইসলামী আইন শ্রেষ্ঠ বলে দাবি করেছেন।

গত বছর জেরাল্ড দারমানিন উগ্রবাদের সংশ্লিষ্টতা রয়েছে এমন মসজিদগুলোতে কঠোর অভিযান পরিচালনার ঘোষণা দিয়েছেন।

ফ্রান্সের বিতর্কিত শিক্ষক স্যামুয়েল প্যাটির শিরশ্ছেদ ও ২০২০ সালের অক্টোবরে নিসে এক ক্যাথেড্রালে তিন জনকে মারাত্মকভাবে ছুরিকাঘাতের প্রতিক্রিয়া হিসেবে এ পদক্ষেপ নেয়া হয়। এসব ঘটনার জন্য উগ্রবাদীদের দায়ী করা হয়েছে।

ফ্রান্সের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় বলেছে, ওই ঘটনার পর গত কয়েক মাসে তারা ফ্রান্সের ২৬২০ টি মসজিদের মধ্যে ১০০টির বেশি মসজিদ ও নামাজের স্থানে তদন্ত চালিয়েছেন।

সূত্র : বিবিসি

Previous articleলাশের আশায় এখনো বিষখালী নদীতে খুঁজে বেড়াচ্ছেন স্বজনরা
Next articleখালেদা জিয়ার বিদেশে চিকিৎসার দরখাস্ত পুনর্বিবেচনার ক্ষমতা আমার নাই: আইনমন্ত্রী
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।