কাগজ প্রতিনিধি: নির্বাচন সামনে রেখে মনোনয়ন ফরম বিক্রির কার্যক্রমের মধ্যেই ঢাকার নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে পুলিশের সঙ্গে দলটির নেতাকর্মীদের সংঘর্ষ চলছে।

বুধবার বেলা ১টার আগে আগে কর্মী সমর্থকদের একটি বড় মিছিল ফকিরাপুলের দিক থেকে বিএনপি কার্যালয়ের দিকে যাওয়ার সময় পুলিশ রাস্তা বন্ধ করে মিছিল নিয়ে যেতে নিষেধ করলে সংঘর্ষ শুরু হয়।

বিএনপি কর্মীরা পুলিশের দিকে ঢিল ছুড়তে শুরু করলে পুলিশ টিয়ার শেল ও রাবার বুলেট ছুড়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনার চেষ্টা করে। ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার মধ্যে চলে লাঠিপেটা।

এক পর্যায়ে পুলিশ কিছুটা দূরে সরে গিয়ে নাইটিঙ্গেল মোড়ে অবস্থান নেয়। বিএনপি কর্মীরা তখন নয়া পল্টনের সড়কে থাকা বেশ কিছু গাড়ি ভাঙচুর করে। পুলিশের দুটি গাড়িতে আগুন ধরিয়ে দেওয়া হয়।

সংঘর্ষের মধ্যে বিএনপি অফিসের সামনে থাকা অনেকে আশ্রয়ের আশায় কার্যালয়ের ভিতরে ঢুকে যান। বিএনপি অফিসের সবগুলো ফটক বন্ধ করে দেওয়া হয়।

পল্টন থানার ওসি মাহমুদ হোসেন আজকের কাগজ ডটকম ডটবিডিকে বলেন, “পার্টি অফিসের সামনে আসা নেতাকর্মীরা সড়কে বিশৃঙ্খলভাবে অবস্থান করছিল। পুলিশ তাদের সুশৃঙ্খলভাবে থাকতে অনুরোধ করেছিল। কিন্তু তারা বিনা উসকানিতে পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষে লিপ্ত হয়।”

বেলা দেড়টার দিকে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা এসে গাড়িতে দেওয়া আগুন নেভাতে কাজ শুরু করেন। বিএনপিকর্মীরা রাস্তা আটকে রাখায় ঘটনাস্থলে পৌঁছাতে বেগ পেতে হয় বলে অগ্নি নির্বাপক বাহিনীর কর্মীরা জানান।

বেলা দেড়টার পর সংঘর্ষ কমে এলেও নয়া পল্টনে উত্তেজনা চলছিল। বিএনপি নেতাকর্মীরা কার্যালয়ের সামনে অবস্থান নিয়ে খণ্ড খণ্ড মিছিল করছিলেন। অন্যদিকে পুলিশ অবস্থান নিয়ে ছিল নাইটিঙ্গেল মোড়ের কাছে। বেলা ২টার সময়ও ওই সড়ক দিয়ে যানবাহন চলাচল বন্ধ ছিল।

Previous articleকুড়িগ্রাম-৪ আসন থেকে স্বতন্ত্র প্রার্থী হচ্ছেন ইমরান এইচ সরকার
Next article৮ বছর পর মাহমুদউল্লাহর সেঞ্চুরি, জিম্বাবুয়ের দরকার ৪৪৩
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।