বাংলাদেশ প্রতিবেদক: মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) সম্পর্কে ভারতের ক্ষমতাসীন বিজেপি’র দুই নেতার অবমাননাকর মন্তব্যের প্রতিবাদে ঢাকায় ভারতীয় হাইকমিশনার অভিমুখে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের গণমিছিল ব্যারিকেড দিয়ে থামিয়ে দিয়েছে পুলিশ।

পূর্ব নির্ধারিত কর্মসূচির অংশ হিসেবে বৃহস্পতিবার বেলা ১১টার দিকে বায়তুল মোকাররম জাতীয় মসজিদের উত্তর গেট থেকে কয়েক হাজার নেতাকর্মী মিছিল শুরু করে।

দলটির আমীর মুফতি রেজাউল করিমের (পীর সাহেব চরমোনাই) নেতৃত্বে মিছিলটি দুপুরে শান্তিনগর মোড়ে পৌঁছালে পুলিশ ব্যারিকেড দিয়ে তাদের থামিয়ে দেয়।

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের উইংয়ের সমন্বয়কারী শহিদুল ইসলাম কবির বলেছেন, পুলিশ তাদের দলটির প্রেসিডিয়াম সদস্য মোসাদ্দেক বিল্লাহ আল মাদানীর নেতৃত্বে পাঁচ সদস্যের একটি প্রতিনিধি দলকে প্রতিবাদ স্মারকলিপি জমা দেয়ার জন্য বারিধারার হাইকমিশন মিশনে যাওয়ার অনুমতি দিয়েছে।

বিক্ষোভকারীরা ভারতীয় জনতা পার্টির (বিজেপি) সাবেক নেতা নুপূর শর্মা এবং নবীন জিন্দালের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করেন।

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের নেতারা ভারতীয় মিশনে চলে যাওয়ার পর বিক্ষোভকারীরা শান্তিপূর্ণভাবে তাদের কর্মসূচি শেষ করে।

এর আগে গত শুক্রবার স্মারকলিপি জমা দিতে ভারতীয় হাইকমিশনের দিকে গণমিছিলের ঘোষণা দেয় ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ।

এছাড়াও শুক্রবার কয়েক হাজার মানুষ বায়তুল মোকাররম জাতীয় মসজিদে নামাজের পর রাস্তায় নেমে আসে এবং বিপুল সংখ্যক পুলিশের উপস্থিতিতে কাকরাইলের নাইটিংগেল পর্যন্ত মিছিল করে।

নবী মুহাম্মদ সম্পর্কে অবমাননাকর মন্তব্যের জন্য ভারতের ক্ষমতাসীন বিজেপি ইতোমধ্যে তাদের মুখপাত্র নুপূর শর্মাকে বরখাস্ত করেছে। দলের আরেক নেতা নবীন জিন্দালকেও একই ধরনের অপরাধে বহিষ্কার করা হয়েছে।

এ ঘটনায় ভারত মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠ বিশেষ করে মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলো থেকে কূটনৈতিক চাপের সম্মুখীন হয়েছে।

Previous articleযারা বুস্টার ডোজ নেননি, শিগগির নিন: স্বাস্থ্যমন্ত্রী
Next articleনোয়াখালীতে ডিভোর্সি তরুণীকে গলা কেটে হত্যা, গ্রেপ্তার ৪
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।