বাংলাদেশ ডেস্ক: মোহাম্মদ রিজওয়ান। পাকিস্তান ক্রিকেট দলের অন্যতম স্তম্ভ তিনি। আধুনিক ক্রিকেটে ধারাবাহিকতার অন্যতম নজির তিনি। রানের পাহাড় গড়ে প্রতিনিয়ত রেকর্ড ভেঙে রেকর্ড করে নিজেকে পৌঁছে দিয়েছেন অনন্য উচ্চতায়। তার পারফরম্যান্সে চোখ বুলালে বলতে বাধ্য হবেন, রান করা কি এতোই সহজ!

সম্প্রতি এক সিরিজে সর্বোচ্চ টি-টোয়েন্টি রানের রেকর্ড গড়া রিজওয়ান এখন আছেন নিউজিল্যান্ডে। বিশ্বকাপের আগে স্বাগতিক নিউজিল্যান্ড ও বাংলাদেশের বিপক্ষে ত্রিদেশীয় সিরিজ খেলতে রিজওয়ান ও তার দল এখন অবস্থান করছেন তাসমান সাগর পাড়ে।

সদা হাসোজ্জ্বল রিজওয়ানের ধর্ম-প্রেমের গল্প সবারই জানা। সবকিছুর উপর বরাবরই তিনি ধর্মকে স্থান দেন, ধর্মের আদেশের সামনে প্রতি বরাবরই নতশির থাকেন। একজন পরিপূর্ণ মুসলমান হতে সদা সচেষ্ট থাকেন। খেলার মাঝে নামাজরত অবস্থায় তো তাকে প্রায়ই দেখা যায়, দেখা যায় কোরআন পাঠ করতে। কিছুদিন আগে দেখা গিয়েছিল সবাই যখন খোশগল্প আর মোবাইলে ব্যস্ত, রিজওয়ান তখন কোরআন পাঠে ধ্যানমগ্ন।

এবার নিউজিল্যান্ড সফরেও ধর্ম নিয়ে আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে রিজওয়ান। সেখানে ক্রাইস্টচার্চের এক মসজিদে খুতবা (বয়ান) দিতে দেখা গেছে ধর্মভীরু এই ক্রিকেটারকে। যেই বয়ান মন ছুঁয়ে গেছে ভক্ত-সমর্থকসহ ধর্মভীরু সাধারণ মুসলিমদেরও।

তার বয়ানে রিজওয়ান বলেন, ‘মহান আল্লাহ তায়ালা আমাদের সুস্থ রেখেছেন, এটি আমাদের জন্য নেয়ামত। একটা সময় এই পৃথিবীতে কিছুই ছিল না। এরপর একে একে আল্লাহ রাব্বুল আলামিন মানুষ সৃষ্টি করেছেন এবং মানুষের জন্য যা কল্যাণকর, তা সৃষ্টি করে সুন্দর এক পৃথিবী গড়ে দিয়েছেন। আমাদের আল্লাহর শুকরিয়া আদায় করা উচিত।’

তিনি আরো বলেন, ‘আমরা যদিও এখানে ক্রিকেট খেলতে এসেছি। আমাদের দেশকে রিপ্রেজেন্ট করতে এসেছি। আমাদের দায়িত্ব মাঠে শতভাগ দেয়া। সেইসাথে মনে রাখতে হবে আমাদের পরকালের জন্য দায়িত্ব রয়েছে। আল্লাহর সন্তুষ্টি অর্জনে আমাদের সর্বোচ্চ দিতে হবে। এটাই আমাদের সবার আসল উদ্দেশ্য হওয়া উচিত।’

Previous articleকরোনায় আরো ৩ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ৩৬৭
Next articleপীরগঞ্জে স্কুলের ম্যানেজিং কমিটির নির্বাচন নিয়ে দুই গ্রুপের সংঘর্ষ, শিক্ষার্থী নিহত
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।