বেনাপোলে দুদকের সাবেক ডিডিকে আটকের দাবিতে মানববন্ধন

শহিদুল ইসলাম: বেনাপোলে দুদকের সাবেক ডিডি আহসান আলীকে আটকের দাবিতে বেনাপোল কাস্টমস সিএন্ডএফ এসোসিয়েশনের আয়োজনে স্থলবন্দর ব্যবহারকারী বিভিন্ন সংগঠন বেনাপোল কাস্টমস হাউজের সামনে মানববন্ধন কর্মসুচি করেছে।

রবিবার (২৯ সেপ্টেম্বর) সকাল ১০ টার সময় শুরু হয়ে সকাল ১১টার সময় এ কর্মসুচি শেষ হয়।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন, খুকাএভ ও বেনাপোল কাস্টমস এক্সিকিউটিভ অফিসার্স এসোসিয়েশন,বেনাপোল সিএন্ডএফ ষ্টাফ এসোসিয়েশন, বেনাপোল স্থলবন্দর চট্টগ্রাম বিভাগীয়স্থ সমিতি, বেনাপোল ট্রান্সপোর্ট মালিক সমিতি, বেনাপোল স্থলবন্দর হ্যান্ডলিং শ্রমিক ইউনিয়ন ৮৯১/৯২৫, ঝিকরগাছা শার্শা বেনাপোল ট্রাক মালিক সমিতি, যশোর জিলা ট্রাক ও ট্যাংক লড়ি শ্রমিক ইউনিয়ন, বেনাপোল।

এসময় বক্তারা বলেন, শুল্ক ফাঁকিবাজ, রাজস্ব শত্রু, ভায়াগ্রা মাফিয়া ও চোরাকারবারীদের গডফাদার আহসান আলীর নের্তৃত্বে চোরাকারবারী সংঘবদ্ধ চক্র কমিশনার ও বেনাপোল কাস্টম হাউসের বিরুদ্ধে পরিকল্পিত মিথ্যাচার, অপপ্রচার ও প্রতিশোধমূলক কর্মকান্ডে লিপ্ত আছে। কেবল হয়রানি, শত্রুতামূলক প্রতিহিংসা চরিতার্থের জন্যে আহসান আলী দুদকের মতো জাতীয় প্রতিষ্ঠানের নাম, পদবী ও প্রশাসনকে ব্যবহার করে নিজের উদ্দেশ্য হাসিল করতে চেয়েছেন। কোন প্রকার প্রামাণ্য তথ্য উপাত্ত ছাড়া কমিশনার মহোদয়ের বিরুদ্ধে বেনামী চিঠি দুদকসহ শতাধিক দপ্তর ও মিডিয়ায় বিতরণ করে বেনাপোল কাস্টম হাউস ও উচ্চ পদস্থ একজন কর্মকর্তার সম্মানহানি হয়েছে। যার ফলে কাস্টমসে রাজস্ব ঘাটতি হয়েছে, আমদানি-রফতানি কারকরা সঠিক সময়ে তাদের পণ্য ডেলিভারি নিতে পারেনি। অনেক প্রতিষ্ঠান ঠিক মতো কাজ করতে পারেনি। এজন্য তারা দ্রুত সময়ে তাকে আটক করে আইনের আওতায় আনার আহবান জানান। অন্যথায়, তারা কঠোর কর্মসুচি পালনের হুশিয়ারী দেন।