ভূঞাপুরে ৯৭০ বোতল ফেনসিডিলসহ প্রাইভেটকার উদ্ধারের ঘটনার পলাতক আসামী গ্রেফতার

আব্দুল লতিফ তালুকদার: টাঙ্গাইলের ভূঞাপুরের গোবিন্দাসী ইউনিয়নের খানুরবাড়ী এলাকার যমুনার পাড় এলাকা থেকে ৯৭০ বোতল ফেনসিডিলসহ প্রাইভেটকার উদ্ধারের ঘটনার পলাতক আসামী মোঃ সুমন সরকার (৩৩) কে গ্রেফতার করেছে ভূঞাপুর থানা পুলিশ। মঙ্গলবার (৮ সেপ্টেম্বর) রাতে বগুড়া জেলার সদর থানার নামাজ গড় নামক এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃত সুমন সরকার নীলফামারী জেলার কিশোরগঞ্জ থানার খামার গাড়াগ্রামের মোঃ অহিদুল ইসলামের ছেলে।

ভূঞাপুর থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ রাশিদুল ইসলাম জানান, গত ১৯ ফেব্রুয়ারি সকাল সাড়ে ৮ টার দিকে উপজেলার গোবিন্দাসী ইউনিয়নের খানুরবাড়ী গ্রামের ফরিদ উদ্দিনের বাড়ীর পিছনে নদীর পাড় হতে ৯৭০ বোতল ফেনসিডিলসহ একটি সাদা রংয়ের প্রাইভেটকার উদ্ধার করলেও ফেনসিডিল বহনকারী প্রাইভেটকারের চালক পালিয়ে যায়। ওই ঘটনায় ভুঞাপুর থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে একটি মামলা দায়ের করা হয়। দীর্ঘদিনের প্রচেষ্টার পর তাকে গ্রেফতার করতে করা হয়েছে। তিনি আরো জানান, গ্রেফতারকৃত আসামীর বিরুদ্ধে একাধিক মাদক

মামলা রয়েছে। গেল বুধবার (৯ সেপ্টেম্বর) টাঙ্গাইল আদালতে প্ররণ করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, গত ১৯ ফেব্রুয়ারি- সকাল সাড়ে ৮ টায় উত্তরাঞ্চল থেকে ছেড়ে আসা বঙ্গবন্ধু সেতু পূর্ব পাড় গোলচত্বর এলাকা দিয়ে প্রাইভেটকারটিতে বিশেষ কায়দায় ফেনসিডিল বহন করা গাড়িকে সন্দেহ হলে সেতু পূর্ব পাড় গোলচত্বর এলাকায় কর্তব্যরত সার্জেন্ট ওয়ালিদ প্রাইভেট কারটিকে সিগন্যাল দিলে গাড়ির না থামালে মোটরসাইকেল নিয়ে ধাওয়া করলে গোবিন্দাসীর যমুনা নদীর পাড়ে প্রাইভেটকারটি রেখে চালক দ্রুত পালিয়ে যায়। পরে খবর পেয়ে ভূঞাপুর থানা পুলিশ প্রাইভেটকারে থাকা ৯৭০ বোতল উদ্ধার করা হয়।