বাংলাদেশ প্রতিবেদক: রাজধানীর নয়াপল্টন এলাকায় পুলিশের সঙ্গে বিএনপি নেতাকর্মীদের সংঘর্ষের ঘটনায় ৩০ জনের বেশি বিএনপি নেতাকর্মীকে আটক করা হয়েছে। সংঘর্ষে বিএনপি নেতাকর্মীদের পুলিশকে লক্ষ্য করে ইট-পাটকেল ছুড়তে দেখা যায়। পুলিশও টিয়ার শেল নিক্ষেপ করে। এতে নয়াপল্টন ও এর আশপাশের এলাকায় ব্যাপক আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে।

ওসি সালাউদ্দিন মিয়া বলেন, বিএনপির ২৫-৩০ নেতাকর্মীকে আটক করা হয়েছে। তবে যাচাই বাছাই করে যারা এ ঘটনায় জড়িত না অর্থাৎ পথচারী তাদেরকে ছেড়ে দেয়া হবে।

মঙ্গলবার সারাদেশে সাম্প্রদায়িক হামলার প্রতিবাদে বিএনপির উদ্দ্যোগে নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে সম্প্রীতি মিছিলের আয়োজন করে দলটি। বেলা সাড়ে ১১টার দিকে মিছিল নিয়ে বের হলে এ সংঘর্ষ হয়।

এ দিন সকাল থেকেই দলটির কার্যালয়ের সামনে জড়ো হতে থাকেন নেতাকর্মীরা। তবে বিক্ষোভ সমাবেশ শুরুর আগেই বেশ কয়েকজনকে গ্রেফতার করে পুলিশ। পরে শুরু হয় ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া।

দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল বলেন, সরকার সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বিনষ্ট করছে। তার প্রতিবাদে বিক্ষোভ মিছিল ডাকলে সকাল থেকে গ্রেফতার চলছে। জনগণ প্রতিবাদী হলেই হামলা চালানো হচ্ছে। ক্ষতিগ্রস্তদের ক্ষতিপূরণের দাবি জানান তিনি।

সমাবেশে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেন, অন্যায়ভাবে গ্রেফতার নেতাকর্মীদের মুক্তি না দিলে পুলিশের সাথে জনগণের লড়াই হবে। সরকার পরিকল্পিতভাবে খালেদা জিয়াকে খুন করতে চায় বলেও অভিযোগ করেন গয়েশ্বর।

Previous articleহবিগঞ্জে দুই ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষে দুই চালক নিহত
Next articleবাড়ি থেকে টাকা হাতিয়ে অটোচালকের সাথে পালালেন কোটিপতির স্ত্রী
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।