বিমল কুন্ডু: সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুর উপজেলার বেলতৈল ইউনিয়নের বেতকান্দি কর্মকারপাড়ার সাধন কর্মকার ও গৌতম কর্মকারের জুয়েলারি কারখানা ও বসতবাড়িতে দুধর্ষ ডাকাতির ঘটনা ঘটেছে। দেশীয় অস্ত্রেসস্ত্রে সজ্জিত সংঘবদ্ধ ডাকাতদল ওই বাড়ির লোহার সিন্দুক খুলে ও স্টিলের আলমারি ভেঙ্গে নগদ টাকা, সোনা ও রূপাসহ প্রায় ১৫ লাখ টাকার মালামাল লুট করে নিয়ে গেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এসময় বাঁধা দেয়ার চেষ্টা করলে ডাকাতদের হামলায় ওই বাড়ির নীল রতন কর্মকার (৩৫) ও শিউলি কর্মকার (৪২) আহত হয়। এর মধ্যে নীল রতন কর্মকারকে গুরুতর অবস্থায় এনায়েতপুর খাজা ইউনুস আলী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। সাধন কর্মকার ও গৌতম কর্মকার সাংবাদিকদের জানান, গতকাল সোমবার দিবাগত রাত দেড়টার দিকে একদল ডাকাত ওই বাড়িতে প্রবেশ করে বাড়ির ৯ সদস্য ও জুয়েলার্স কারখানার ২ শ্রমিককে অস্ত্রের মুখে হাত- পা বেঁধে একটি কক্ষে আটকে রেখে প্রায় ১ ঘন্টাব্যাপী ডাকাতির তান্ডব চালায়। ডাকাতদল জুয়েলারি কারখানা ও বসতঘরে থাকা লোহার সিন্দুক, স্টিলের আলমারি ভেঙ্গে নগদ ১ লাখ টাকা, ২০ ভরি সোনা, ১৫০ ভরি চান্দি রূপাসহ প্রায় ১৫ লাখ টাকার মালামাল লুট করে নিয়ে যায়। ডাকাতদলের সদস্যদের মুখ ঢাকা থাকায় তাদের চেনা সম্ভব হয়নি। তবে তাদের ভাষা এই এলাকার মতই মনে হয়েছে বলে বাড়ির মালিক সাধন কর্মকার ও গৌতম কর্মকার জানান। খবর পেয়ে আজ মঙ্গলবার সকালে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। এ ব্যাপারে থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) শেখ ময়নুল ইসলাম ডাকাতির ঘটনায় কোন মন্তব্য না করে জানান, এখনও মামলা হয়নি, মামলা হলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Previous articleমুলাদীতে টাকা ছাড়া ফাইলে স্বাক্ষর করেন না শিক্ষা কর্মকর্তা
Next articleটাঙ্গাইলে রাতে বাড়ি গিয়ে ইউএনও’র কম্বল বিতরণ
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।