জয়নাল আবেদীন: রংপুর জেলার সেবক জেলা প্রশাসক আসিব আহসান রংপুরে ওএমএস ও টিসিবির কার্যক্রম সমন্বয় সাধনের মাধ্যমে খোলা বাজারে খাদ্যশস্য বিক্রয় কার্যক্রম নিয়ে গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে প্রেস ব্রিফিং এ আয়োজন করে ।

লিখিত বক্তব্যে তিনি বলেন খাদ্যশস্যের বাজার মূল্যের ঊর্ধ্বগতির প্রবণতা রোধ করে নিম্ন আয়ের জনগোষ্ঠীকে মূল্য সহায়তা দেয়া এবং বাজার দর স্থিতিশীল রাখার জন্য সারা দেশে এক যোগে ওএমএস ও খাদ্যবান্ধব কর্মসূচি বাস্তবায়ন করতে বিভিন্ন পরিকল্পনা গ্রহীত হয়েছে। সারাদেশের ন্যায় রংপুর জেলার রংপুর সিটি কর্পোরেশন, উপজেলা ও পৌরসভাগুলোতে ওএমএস কার্যক্রম সম্প্রসারণ করা য়েছে। উপজেলা পর্যায়ে ৫টি উপজেলা সদরে (মিঠাপুকুর, তারাগঞ্জ, গঙ্গাচয়া, কাউনিয়া ও পীরগাছা) দৈনিক ২টি ডিলারের মাধ্যমে ডিলার প্রতি ২ টন করে চাল বিক্রি করা হবে। তাছাড়া বাকি ৩টি পৌরসভায় প্রতিদিন দৈনিক ৩টি দোকান ডিলারের মাধ্যমে ডিলার প্রতি ২ টন করে চাল বিক্রি করা হবে।

রংপুর সিটি কর্পোরেশনে ১৭টি দোকান ডিলার এবং ৮টি ট্রাক ডিলারের মাধ্যমে অর্থাৎ মোট ২৫টি কেন্দ্রে এ কার্যক্রম চলবে। শুধুমাত্র সিটি কর্পোরেশন এর ১৭ টি দোকানে ডিলারে চালের পাশাপাশি ডিলার প্রতি ৫০০ কেজি করে মোট ৮.৫০০ মে.টন আটাও বিক্রি করা হবে। জেলার মোট দৈনিক বিক্রয় কেন্দ্র থাকছে ৪৪টি। দৈনিক জেলায় মোট চালের বরাদ্দ ৮৮ মে.টন এবং দৈনিক সিটি কর্পোরেশনে মোট আটা বরাদ্দ ৮.৫০০ মে.টন।তিনি জানান, টিসিবি ভোক্তারাও তাদের কার্ড দেখিয়ে পাক্ষিক ভিত্তিতে একবার ৫ কেজি করে মাসে দুইবারে ১০ কেজি চাল ক্রয় করতে পারবেন। তাদের জন্য আলাদা থাকবে। সিটি কর্পোরেশন এলাকায় প্রতিদিন সর্বোচ্চ ০৩ কেজি করে আটা ক্রয় করতে পারবেন। তবে টিসিবির কার্ডধারীগণ আটা ক্রয় করতে পারবে না। প্রতি কেজি চালের মূল্য ৩০/- টাকা এবং প্রতি কেজি আটার মূল্য ১৮/- টাকা নির্দ্ধারণ করা হয়েছে। এ কর্মসূচির আওতায় রংপুর জেলায় প্রতিদিন ১৭৬০০ জন উপকারভোগী চাল ক্রয় করতে পারবেন এবং সিটি কর্পোরেশন এলাকায় প্রতিদিন ২৮৩৩ জন উপকারভোগী আটা ক্রয় করতে পারবে। এ কার্যক্রম রবিবার হতে বৃহস্পতিবার পর্যন্ত সপ্তাহে ৫দিন সকাল ৯টা হতে বিকাল ৫টা পর্যন্ত অথবা বিক্রি শেষ হওয়া পর্যন্ত যেটি আগে ঘটবে সে মোতাবেক চলমান থাকবে।

তিনি বলেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা অনুযায়ী টিসিবির কার্ডধারীগণ অগ্রাধিকার ভিত্তিতে পণ্য পাবেন।এ সময় উপস্থিত ছিলেন খাদ্য মন্ত্রনালয়ের উপ-সচিব শামছুজ্জামান, রংপুর সিটি কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ রুহুল আমীন মিঞা, ডিসি ফুড রেয়াজুর রহমান, আরসি ফুড মোঃ আশরাফুল আলম ও অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক মোঃ গোলাম রব্বানী।

এর আগে বৃহস্পতিবার সকালে নগরীর ২৬নং ওয়ার্ডের রবাটসনগঞ্জে যৌথভাবে উক্ত কর্মসূচির উদ্বোধন করেন রংপুর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আলহাজ্ব মোঃ মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফা ও জেলা প্রশাসক মোঃ আসিব আহসান। এ সময় উপস্থিত ছিলেন রংপুর সিটি কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ রুহুল আমীন মিঞা, সচিব উম্মে ফাতিমা, প্রশাসনিক কর্মকর্তা মোঃ নাঈম উল হক, আওয়ামীলীগের প্রবীণ নেতা মোঃ শামিম তালুকদার ও ২৬নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর সাইফুল ইসলাম ফুলুসহ অন্যান্য কর্মকর্তাবৃন্দ।

Previous articleআরআরইউ-র দ্বি-বার্ষিক নির্বাচনে সভাপতি এসএম আব্দুল মুগণী ও সাধারন সম্পাদক আবু হেনা
Next articleদেশব্যাপী গণ্ডগোলের পরিকল্পনা নিয়ে মাঠে নেমেছে বিএনপি: তথ্যমন্ত্রী
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।