কামাল সিদ্দিকি : পাবনার সুজানগর উপজেলায় ছাগলে জমির ফসল খাওয়াকে কেন্দ্র দুই গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ হয়ে এরশাদ সেখ (৩২) নামে এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আরও অন্তত ৫ জন আহত হয়েছেন।

এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে এলাকায় চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে। বেশ কয়েকটি বাড়ি-ঘর ভাংচুর ও আগুন দিয়ে পুড়িয়ে দেওয়া হয়েছে।

রোববার (০৪ সেপ্টেম্বর) রাত ৯টার দিকে উপজেলার ভায়না ইউনিয়নের চলনা গ্রামের মাদারতলা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত এরশাদ শেখ চলনা গ্রামের মাদারতলা এলাকার মোয়াজ্জেম হোসেনের ছেলে। আহতদের নাম- পরিচয় পাওয়া যায়নি। তাদের পাবনা জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানান, রোববার বিকেলে জমির ফসল ছাগলে খাওয়াকে কেন্দ্র প্রথমে তাদের মধ্যে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। পরে রাতে দুই পক্ষই আবারও বড় ধরনের সংঘর্ষে জড়ায় এবং বেশ কিছুক্ষণ গোলাগুলি চলে উভয় পক্ষের মধ্যে। এতে ৫ জন গুরুতর আহত হন। আহতদের উদ্ধার করে পাবনা জেনারেল হাসপাতালে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক গুলিবিদ্ধ এরশাদ শেখকে মৃত ঘোষণা করেন। মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়লে এলাকায় আরও উত্তেজনা দেখা দেয় এবং বেশ কিছু বাড়িতে আগুন ধরিয়ে দেয়া হয়।

সুজানগর সার্কেলের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার রবিউল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, আমরা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে কাজ করছি। ছাগলে জমির ফসল খাওয়াকে কেন্দ্র এই ঘটনার সুত্রপাত বলে প্রাথমিক তথ্য পেয়েছি। এ দিকে এই ঘটনায় জড়িত সন্দেহে উপজেলা বিএনপির সভাপতি আজম বিশ্বাস সহ ৩ জনকে আটক করেছে পুলিশ ।

Previous articleপ্রধানমন্ত্রী প্রত্যেকবার ভারতকে দিয়ে এসেছেন, নিয়ে আসেননি: মির্জা ফখরুল
Next articleশেখ হাসিনার ভারত সফর থেকে কেন বাদ পড়লেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।