কাগজ প্রতিবেদক: ডাকসুর সহসভাপতি (ভিপি) হিসেবে কোটা আন্দোলনের নেতা নুরুল হক নুরের নাম ঘোষণার প্রতিবাদে বিক্ষোভ করছে ছাত্রলীগ। মঙ্গলবার সকালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালযয় উপাচার্যের বাসভবনের সামনে টায়ার জ্বালিয়ে বিক্ষোভ করতে দেখা গেছে সংগঠনটির নেতাকর্মীদের।
এ সময় তারা ‘প্রহসনের নির্বাচন মানি না মানব না’, ‘জয় বাংলা জয় বঙ্গবন্ধু’, ‘ভয় করি না বুলেট বোমা, আমরা সবাই মুজিব সেনা’ বলে বিভিন্ন স্লোগান দিচ্ছেন।
এর আগে বিশ্ববিদ্যালয়ের সব প্রবেশ মুখ বন্ধ করে দেন ছাত্রলীগ নেতাকর্মীরা। এতে বিশ্ববিদ্যালয় এলাকা দিয়ে সব ধরনের যানবাহন চলাচল বন্ধ রয়েছে।

এদিকে ছাত্রলীগের অনির্ধারিত এই অবরোধের কারণে বিপাকে পড়েন ক্যাম্পাসে অবস্থিত উদয়ন এবং ইউনিভার্সিটি ল্যাবরেটরি স্কুলের শিক্ষার্থী ও তাদের অভিভাবকরা।
তাদের ক্যাম্পাসে যেতে দেয়া হলেও রিকশা ও মোটরসাইকেলসহ যানবাহন আটকে দেয়া হচ্ছে।
জানা গেছে, অনেকে ব্যারিকেড পেরিয়ে স্কুল পর্যন্ত পৌঁছালে সেখান থেকে তাদের ফিরিয়ে দেয়া হচ্ছে। উদ্ভূত পরিস্থিতিতে উদয়ন স্কুল কর্তৃপক্ষ ছুটি ঘোষণা করেছে।
প্রসঙ্গত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু) নির্বাচনে সহসভাপতি (ভিপি) নির্বাচিত হয়েছেন কোটা সংস্কার আন্দোলনের নেতা নুরুল হক নূর। তিনি পেয়েছেন ১১ হাজার ৬২ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ছাত্রলীগ সভাপতি রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন পেয়েছেন ৯ হাজার ১২৯ ভোট।
নির্বাচনে সাধারণ সম্পাদক (জিএস) পদে জয়লাভ করেছেন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানী।
এ ছাড়া সহসাধারণ সম্পাদক (এজিএস) নির্বাচিত হয়েছেন ঢাবি শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সাদ্দাম হোসাইন।

সোমবার দিনগত রাত ৩টা ১৭ মিনিটে বিশ্ববিদ্যালয়ের নবাব নওয়াব আলী চৌধুরী সিনেট ভবন মিলনায়তনে ফল ঘোষণা শুরু করেন উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান।
ফল ঘোষণার সময়ই ছাত্রলীগ সভাপতি শোভনের অনুসারীরা বিক্ষোভ করেন।