জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের শীর্ষ নেতা ও গণফোরাম সভাপতি ড. কামাল হোসেন বলেছেন, আমরা ঐক্যবদ্ধ হয়েছি, ঐক্যবদ্ধ থাকবো। সমবেত হয়ে সিদ্ধান্ত নেবো অন্যায় থেকে দেশকে মুক্ত হতে হবে। আমাদের সবাইকে মিলে পাহাড়াদার হতে হবে। সুষ্ঠু ভোটের জন্য শপথ নিন। সবাই ঐক্যবদ্ধ থাকবেন কারো সঙ্গে আপস করবেন না।

আজ মঙ্গলবার বিকেলে রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে আয়োজিত জনসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

ড. কামাল হোসেন বলেন, আমি কোনো দলের সদস্য হিসেবে বলছি না। দেশের মালিক হিসেবে আপনারা দাঁড়িয়ে যান। যেভাবে মানুষকে বন্দি করা হচ্ছে এভাবে এটা করা যায় না। এসব অবৈধ, অপরাধ। এসব থেকে মানুষকে মুক্ত করতে হবে।

তিনি বলেন, সরকার বলেছিল ৫ জানুয়ারির পর আরেকটা নির্বাচন দিতে হবে। কিন্তু তারা দিলেন না। একবছর, দুইবছর করে পুরো ৫ বছর ক্ষমতায় থাকলেন। এই সরকারের কথায় এক পয়সাও দাম নেই। ৫ জানুয়ারের নির্বাচনের মাধ্যমে তা প্রমাণ হয়েছে।

তিনি আরো বলেন, দেশে গণতন্ত্রের কথা বলে ক্ষমতার অপপ্রয়োগ করেছেন। আমাদের বাঁচার উপায় হলো জনগণকে দাঁড়াতে হবে। বাস বন্ধ করে, ট্রেন বন্ধ করে জনগণকে ভোগান্তিতে ফেলে আন্দোলন করা যাবে না।

ড. কামাল হোসেন বলেন, আজ যেখানে সেখানে গ্রেপ্তার করা হচ্ছে। হয়রানি করা হচ্ছে। একটা নির্বাচিত সরকার যদি এটা করতো তবে মেনে নেওয়া যেতো কিন্তু একটা অনির্বাচিত সরকার কাউকে গ্রেপ্তার করতে পারে না। এর জবাব তাদের (সরকার) দিতে হবে।

তিনি বলেন, আপনার পায়ে হেঁটে এসে যেখাবে এখানে দাঁড়িয়েছেন সেভাবে জেলায় জেলায় দাঁড়াতে। আপনারা দেশের মালিক, আপনাদের দাঁড়াতেই হবে।

সভায় সভাপতিত্ব করেন জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের মুখপাত্র বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। এতে প্রধান বক্তা ছিলেন জেএসডির সভাপতি আ স ম আবদুর রব।

Previous articleঐক্যফ্রন্টের সমাবেশের মঞ্চ প্রস্তুত, জড়ো হচ্ছেন নেতাকর্মীরা
Next articleনির্ধারিত তারিখেই তফসিল চায় যুক্তফ্রন্ট
Ajker Bangladesh Online Newspaper, We serve complete truth to our readers, Our hands are not obstructed, we can say & open our eyes. County news, Breaking news, National news, bangladeshi news, International news & reporting. 24 hours update.