বাংলাদেশ প্রতিবেদক: আগামী ১০ জুলাই পবিত্র ঈদুল আযহা। এ উপলক্ষ ঘরমুখো মানুষের নির্বিঘ্ন যাতায়াত নিশ্চিতে ট্রেনের অগ্রিম টিকিট বিক্রি শুরু করেছে বাংলাদেশ রেলওয়ে।

শুক্রবার সকাল ৮টা থেকে টিকিট বিক্রি শুরু হয়। আজকে ৫ জুলাইয়ের টিকিট বিক্রি করা হচ্ছে। তবে টিকিট বিক্রির প্রথম দিনেই কয়েক ঘণ্টার মধ্যে প্রায় সব টিকিট শেষ হয়ে যায়। এমনটিই অভিযোগ করেছেন টিকিট প্রত্যাশীরা। তারা বলছেন, প্রতি লাইনের প্রথম কিছু লোক টিকিট পেয়েছে। বাকিরা আর পায়নি।

কবির হোসেন বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ১১টায় এসে লাইনে দাঁড়িয়ে ছিলেন। শুক্রবার বেলা ১২টায় যখন কাউন্টারের ঠিক কাছে এলেন তখনই শুনেন টিকিট শেষ। দীর্ঘ লাইনে দাঁড়িয়েও টিকিট না পেয়ে তিনি ক্ষোভ প্রকাশ করেন।

আরেক টিকিট প্রত্যাশী সুমা বলেন, গতকাল রাত ১০টায় এসে লাইনে দাঁড়িয়েছি। দিনাজপুরের টিকিট আগেই শেষ হয়ে গেছে। এখন আগামীকালের জন্য এখন অপেক্ষা করতে হবে।

লাবণ্য বলেন, লাইনে দাঁড়িয়েছিলাম, আবার অনলাইনেও টিকিট কাটার চেষ্টা করেছি, কিন্তু কোনো টিকিট পাইনি।

ব্ল্যাকে টিকিট বিক্রি সম্পর্কে কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশন ম্যানেজার মোহাম্মদ মাসুদ সারওয়ার বলেন, এর কোনো সুযোগ নাই। কাউন্টারে মন্ত্রণালয়সহ বিভিন্ন এজেন্সির লোকজন মনিটরিং করছে। এছাড়া ভোটার আইডি কার্ড ছাড়া কাউকে টিকিট দেয়া হচ্ছে না।

তিনি আরো বলেন, চাহিদা অনেক, কিন্তু টিকিট নির্ধারিত। তাই চাইলেও সবাইকে টিকিট দেয়া সম্ভব হবে না। তবে এবার স্ট্যান্ডিং টিকিটের ব্যবস্থা থাকবে।

উল্লেখ্য, শুক্রবার দেয়া হচ্ছে ৫ জুলাইয়ের ট্রেনের টিকিট, ২ জুলাই দেয়া হবে ৬ জুলাইয়ের টিকিট, ৩ জুলাই দেয়া হবে ৭ জুলাইয়ের টিকিট, ৪ জুলাই দেয়া হবে ৮ জুলাইয়ের টিকিট এবং ৫ জুলাই দেয়া হবে ৯ জুলাইয়ের ট্রেনের টিকিট। কমলাপুরসহ রাজধানীর ৬টি ও জয়দেবপুর রেলস্টেশনের কাউন্টার, ওয়েবসাইট এবং রেল সেবা (অথরাইজড) অ্যাপে একযোগ টিকিট দেয়া হচ্ছে।

Previous articleমমতাজ-নিক্সনদের মনে মন্ত্রী হওয়ার খায়েশ জেগেছে: রিজভী
Next articleকলেজ অধ্যক্ষকে অপদস্থ: নড়াইলে আ’লীগ সভাপতিকে অব্যাহতি
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।