বাংলাদেশ প্রতিবেদক: চলতি আগস্ট মাসের দ্বিতীয়ার্ধে দেশের উত্তরাঞ্চল, উত্তর-পূর্বাঞ্চল ও দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলে মৌসুমি ভারী বৃষ্টিপাত হতে পারে। এ কারণে এসব অঞ্চলের কিছু কিছু স্থানে স্বল্প থেকে মধ্য মেয়াদী বন্যা হতে পারে।

শুক্রবার আবহাওয়া অধিদফতরের মাসিক পূর্বাভাসে এমন তথ্য জানানো হয়েছে।

আগস্ট মাসে বঙ্গোপসাগরে এক থেকে দুটি বর্ষাকালীন লঘুচাপ সৃষ্টি হতে পারে, যার মধ্যে একটি মৌসুমি নিম্নচাপে পরিণত হতে পারে।

এ মাসে দেশের উত্তর ও মধ্যাঞ্চলে এক থেকে দু’দিন বিজলি চমকানোসহ মাঝারি ধরনের বজ্রঝড় এবং সারাদেশে ৩ থেকে ৪ দিন বিজলি চমকানোসহ হালকা বজ্রঝড় হতে পারে।

এছাড়া চলতি মাসে দেশে বিচ্ছিন্নভাবে মৃদু (৩৬ থেকে ৩৮.০ সে.) তাপপ্রবাহ বয়ে যেতে পারে। এ মাসে দিন ও রাতের তাপমাত্রা স্বাভাবিক অপেক্ষা কিছুটা বেশি থাকতে পারে।

আবহাওয়া অধিদফতর জানিয়েছে, জুলাইয়ের মতো আগস্টেও স্বাভাবিকের চেয়ে কম বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে।

চলতি মাসে মৃদু তাপপ্রবাহ বয়ে যাওয়ার পাশাপাশি দিন ও রাতের তাপমাত্রাও স্বাভাবিকের চেয়ে বেশি থাকতে পারে। এ মাসেও সবচেয়ে বেশি বৃষ্টি হতে পারে সিলেটে, তারপরই চট্টগ্রামে।

এদিকে সেপ্টেম্বর মাসে বাংলাদেশে স্বাভাবিক বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা আছে। এ মাসে বঙ্গোপসাগরে এক থেকে দুটি মৌসুমী নিম্নচাপ সৃষ্টি হতে পারে।

জুলাই মাসে সারাদেশে স্বাভাবিক অপেক্ষা কম বৃষ্টিপাত হয়েছে, তবে সিলেট বিভাগে স্বাভাবিক বৃষ্টিপাত হয়েছে। সক্রিয় মৌসুমি বায়ুর প্রভাবে ১ জুলাই, ১৯ থেকে ২০ জুলাই, ২৩ থেকে ২৫ জুলাই এবং ৩০ থেকে ৩১ জুলাই দেশের অনেক স্থানে হালকা থেকে মাঝারি ধরণের বৃষ্টিপাত হয়। এ সময় সিলেট, ময়মনসিংহ, রংপুর, রাজশাহী ও চট্টগ্রাম বিভাগের কোথাও কোথাও মাঝারি ধরণের ভারি থেকে অতি ভারি বর্ষণ হয়। এই মাসে সিলেটে ১৬ জুলাই সর্বোচ্চ বৃষ্টিপাত ১৬৩ মিলিমিটার রেকর্ড করা হয়।

আবহাওয়া অধিদফতর আরো জানিয়েছে, মৌসুমী বায়ু দুর্বল থাকায় এ মাসে পশ্চিমা লঘুচাপের সাথে পূবালি বায়ু প্রবাহের সংযোগ ঘটায় ২২ থেকে ২৪ জুলাই ও ৩০ থেকে ৩১ জুলাই সারাদেশে বিচ্ছিন্নভাবে প্রবল বজ্রপাত ও বিজলি চমকানো এবং অস্থায়ীভাবে দমকা হাওয়াসহ বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টিপাত হয়েছে।

বায়ুমণ্ডলে পর্যাপ্ত জলীয় বাষ্পের উপস্থিতি, প্রখর সূর্যকিরণ এবং সর্বোপরি মৌসুমী বায়ু দুর্বল থাকার কারণে ৫ জুলাই, ৭ থেকে ২১ জুলাই, ২৩ ও ২৯ জুলাই রাজশাহী, রংপুর, ঢাকা, সিলেট বিভাগ এবং কুমিল্লা ও নোয়াখালী অঞ্চলে মৃদু থেকে মাঝারি ধরনের তাপপ্রবাহ বয়ে যায়। এ সময় রাজশাহী (১৩ জুলাই) ও সৈয়দপুরে (১৪ জুলাই) সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩৯ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়। এ মাসে দেশের সর্বোচ্চ এবং সর্বনিম্ন তাপমাত্রা স্বাভাবিক অপেক্ষা যথাক্রমে ২.৬০ ডিগ্রি সেলসিয়াস এবং ০.৯০ ডিগ্রি সেলসিয়াস বেশি ছিল।

গত জুলাই মাসের শুরুতে আবহাওয়া অধিদফতর বলেছিল, এ মাসে বৃষ্টি স্বাভাবিকের চেয়ে অপেক্ষাকৃত কম হতে পারে। বৃষ্টি কমই হয়েছে। এ প্রসঙ্গে আবহাওয়াবিদেরা বলেছেন, অবস্থা ছিল অস্বাভাবিক। জুলাইয়ে স্বাভাবিকের চেয়ে প্রায় ৫৮ ভাগ কম বৃষ্টিপাত হয়েছে।

গত জুলাইয়ে স্বাভাবিকের চেয়ে সবচেয়ে কম বৃষ্টি হয়েছে চট্টগ্রাম বিভাগে। এ হার ছিল প্রায় ৬৮ শতাংশ। কম বৃষ্টি হওয়ার দিক থেকে এরপর আছে বরিশাল বিভাগ। এ হার ৬৪.৭। এ মাসে দেশের আট বিভাগের মধ্যে স্বাভাবিক বৃষ্টি হয়েছে শুধু সিলেট বিভাগে।

Previous article‘কাঁচা মরিচ কিনতে আসা ক্রেতা কিনছেন শুকনো মরিচ’
Next articleসাপাহারে বীর মুক্তিযোদ্ধা শহিদ ক্যাপ্টেন শেখ কামালের জন্মবার্ষিকী উদযাপন
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।