বাংলাদেশ প্রতিবেদক: নিত্যপণ্যের দাম বাড়িয়ে লুট চলছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়। তিনি বলেছেন, আর লুট করে দেশ থেকে ১০ লাখ কোটি টাকা পাচার করেছে তারা (আওয়ামী লীগ)।

সোমবার জাতীয় প্রেসক্লাবে জিয়া সমাজকল্যাণ পরিষদের এক সভায় বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান বরকত উল্লাহ বুলুসহ নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দায়েরের প্রতিবাদে তিনি এ মন্তব্য করেন।

এ সময় বিএনপির এই নেতা বলেন, সরকার পুলিশের সোর্স অব ইনকাম বাড়াতে চায় বলে বিভিন্ন ঘটনা ঘটিয়ে বিএনপি নেতাকর্মীদের নামে মামলা দিচ্ছে, গ্রেফতার করছে। পৃথিবীর কোনো দেশে সরকার তার কর্মকর্তাদের ঘুষ দেয় না, কিন্তু তারা দিয়েছে।

গয়েশ্বর বলেন, সম্প্রতি সারা দেশে যে হামলা হয়েছে তা রাজনৈতিক। এটা কোনো সাম্প্রদায়িক দাঙ্গা নয়। বাংলাদেশে কোনো উগ্রবাদ বা মৌলবাদ নেই। সব নাটক করা হয়। আওয়ামী লীগকে টিকিয়ে রাখতে সব করা হয়।

তিনি বলেন, বাংলাদেশের মানুষ নিষ্ঠার সাথে যে যার ধর্ম পালন করে। মৌলবাদের তকমা দিয়ে জাতিকে অপমান করা হয়েছে। তিনি আরো বলেন, বুলু বা বিএনপির কোনো নেতা হামলা করেনি। এটা সরকার, পুলিশ এবং সাধারণ মানুষ জানে। ১৮ কোটি মানুষ জানে। এসব নাটক মানুষ বিশ্বাস করে না। এবার ক্ষমতা হারালে ৪২ বছর আওয়ামী লীগের নাম নেয়ার লোক থাকবে না। তাই বলি, শুটিং নাটক বন্ধ করুন।

জাতীয় প্রেসক্লাবে জিয়া সমাজকল্যাণ পরিষদ আয়োজিত সভায় আরো বক্তব্য রাখেন বিএনপির চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আবদুস সালাম, যুগ্ম মহাসচিব মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল ও সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক আবদুস সালাম প্রমুখ।

Previous articleনিজে দাঁড়িয়ে থেকে স্ত্রীকে তার প্রেমিকের সাথে বিয়ে দিলেন স্বামী
Next articleমানবতাবিরোধী অপরাধ: সাবেক এমপি মোমিনের রায় যেকোনো দিন
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।