বুধবার, মে ২৯, ২০২৪
Homeখেলাধুলামাঠে নামাজ পড়ায় রিজওয়ানের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের ভারতীয় আইনজীবীর

মাঠে নামাজ পড়ায় রিজওয়ানের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের ভারতীয় আইনজীবীর

বাংলাদেশ প্রতিবেদক: খেলার ফাঁকে মাঠেই নামাজ পড়ে নেয়া, রোজা রেখে ম্যাচে নামা বা ভালো ইনিংস খেলে সৃষ্টিকর্তার প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়ে মাঠেই সেজদা দেয়া কিংবা দোয়া পড়া- সবকিছুই পাকিস্তানি ক্রিকেটার মোহাম্মদ রিজওয়ানের ইসলাম ধর্ম চর্চার বহিঃপ্রকাশ। চলমান বিশ্বকাপেও মাঠে নামাজ পড়তে দেখা গিয়েছে এই উইকেটরক্ষক-ব্যাটারকে। তবে রিজওয়ানের এই আচার পছন্দ হয়নি ভারতীয় আইনজীবী বিনীত জিন্দালের। পাকিস্তানি ক্রিকেটারের মাঠে নামাজ পড়ার ঘটনাকে ক্রিকেটীয় চেতনারবিরোধী বলে আইসিসির কাছে নালিশ করেছেন তিনি।

নেদারল্যান্ডসের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে বিশ্বকাপ মিশন শুরু করে পাকিস্তান। সেই ম্যাচের এক ফাঁকে নামাজ পড়তে দেখা যায় মোহাম্মদ রিজওয়ানকে। আইসিসির চেয়ারম্যান গ্রেগ বার্কলেকে পাঠানো অভিযোগপত্রে আইনজীবী জিন্দাল লিখেছেন, ‘এই অভিযোগ পাকিস্তানের ক্রিকেটার মোহাম্মদ রিজওয়ানের বিরুদ্ধে, যিনি চলতি বিশ্বকাপে নেদারল্যান্ডসের বিপক্ষে তার দলের প্রথম ম্যাচে মাঠেই নামাজ পড়েছেন। মাঠে রিজওয়ানের নামাজ পড়াকে অনেক ভারতীয় নাগরিকের কাছে নিজের ধর্মকে ইচ্ছাকৃতভাবে তুলে ধরার প্রতীকী চিত্র বলে মনে হয়েছে, যা খেলাধুলার চেতনাবিরোধী।’

আইনজীবী বলেছেন, ‘এ ধরনের কাজ খেলোয়াড়ের মধ্যে ম্যাচের চেতনাকে প্রশ্নের মুখে ফেলে দেয়। ম্যাচ খেলার সময় খেলোয়াড়ের মধ্যে যে আদর্শ কাজ করে, সেটাকেও প্রশ্নের মুখে ফেলে দেয়। মোহাম্মদ রিজওয়ান ইচ্ছাকৃতভাবে নিজের ধর্মকে যেভাবে উপস্থাপন করেছেন, তাতে তিনি যে বার্তা দিতে চেয়েছেন, সেটি হলো, মুসলিম হিসেবে তিনি খেলাধুলার চেতনাও পেছনে ফেলেছেন।’

শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সেঞ্চুরি করে পাকিস্তানকে জেতানোর পর গাজায় ইসরাইলের হামলায় নিহত মানুষদের জন্য সেঞ্চুরি উৎসর্গ করেছিলেন রিজওয়ান। সে বিষয় নিয়ে বিনীত জিন্দাল অভিযোগপত্রে বলেন, ‘মাঠে রিজওয়ান নিজের ধর্মকে উপস্থাপন করেছেন এবং সংবাদ সম্মেলনে গাজার মানুষদের জয় উৎসর্গ করাটা তার ধর্মীয় ও রাজনৈতিক আদর্শের সত্যায়ন।’

২০২১ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সুপার টুয়েলভে ভারতকে ১০ উইকেটে হারায় পাকিস্তান।

সেই ম্যাচেও নামাজ পড়েছিলেন মোহাম্মদ রিজওয়ান। জিন্দাল বলেন, ‘২০২১ সালে আইসিসি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সুপার টুয়েলভে ভারতকে ১০ উইকেটে হারানোর পর মাঠে নামাজ পড়েছিলেন রিজওয়ান। সাবেক পাকিস্তানি বোলার ওয়াকার ইউনুস তখন বলেছিলেন, ‘‘রিজওয়ান যেটা করেছে, সেটা সবচেয়ে বেশি পছন্দ হয়েছে। সে মাঠের মাঝে দাঁড়িয়ে হিন্দুদের সামনে নামাজ পড়েছে।’’ বিভিন্ন ধর্মের মানুষের সামনে ৩১ বছর বয়সী রিজওয়ান নিজের ধর্মকে উপস্থাপন করার সুযোগ হিসেবে ক্রিকেট ম্যাচকে ব্যবহার করছে। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ম্যাচের মধ্যে মাঠে রিজওয়ানের নামাজ পড়ার প্রশংসাও করেছেন পাকিস্তানিরা।’

আজকের বাংলাদেশhttps://www.ajkerbangladesh.com.bd/
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।
RELATED ARTICLES
- Advertisment -

Most Popular

Recent Comments