টেকনাফে বন্দুকযুদ্ধে রোহিঙ্গাসহ দুই ইয়াবা কারবারি নিহত

কায়সার হামিদ মানিক: কক্সবাজারের টেকনাফে পুলিশের সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে এক রোহিঙ্গাসহ দুই ব্যক্তি নিহত হয়েছে। পুলিশের ভাষ্য, তারা দুজনই ইয়াবা কারবারি।
নিহতরা হলেন টেকনাফ সদর ইউনিয়নের হাতিয়ার ঘোনা এলাকার হামিদ হোসেনের ছেলে আহাম্মদ হোসেন (৪৫) ও নয়াপাড়া শরণার্থী ক্যাম্পের ডি ব্লকের মৃত কালা মিয়ার ছেলে আব্দুর রহমান (৪৬)।
শনিবার ভোর রাতে টেকনাফ সদর ইউনিয়নের পর্যটন বাজারের উত্তরে মালির পাহাড়ের পাদদেশে এই ঘটনা ঘটেছে। এ সময় পুলিশের তিন সদস্য আহত হয়েছেন।
টেকনাফ থানার ওসি প্রদীপ কুমার দাশ বলেন, গত শুক্রবার রাতে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের তালিকাভুক্ত ইয়াবা কারবারি ও একাধিক মামলার পলাতক আসামি আহমদ হোসেন ও রোহিঙ্গা নাগরিক আব্দুর রহমানকে গ্রেপ্তার করে। পরে তাদের স্বীকারোক্তির ভিত্তিতে ইয়াবা ও অস্ত্র উদ্ধারে পুলিশের একটি টিম মালির পাহাড়ের পাদদেশে গেলে সন্ত্রাসীরা পুলিশকে লক্ষ্য করে গুলি ছুড়ে। এ সময় পুলিশও পাল্টা গুলি চালায়। উভয় পক্ষের গোলাগুলিতে ধৃত আসামী আহাম্মদ হোসেন ও আব্দুর রহমান গুলিবিদ্ধ হয়। তাদের দুই জনকে উদ্ধার করে টেকনাফ সদর হাসপাতালে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাদেরকে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে উন্নত চিকিৎসার জন্য কক্সবাজার প্রেরণ করেন়। সেখানে পৌঁছালে কর্তব্যরত ডাক্তার তাদেরকে মৃত ঘোষণা করেন।
ওসি প্রদীপ আরো বলেন, ঘটনাস্থল থেকে দুটি এলজি, 8 রাউন্ড তাজা কার্তুজ ও ৫ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। নিহত দুই জনের মৃতদেহ ময়নাতদন্তের জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।