টাঙ্গাইলে স্ত্রীর সহযোগিতায় বাবাকে পিটিয়ে-শ্বাসরোধে হত্যা

বাংলাদেশ প্রতিবেদক: জেল থেকে বেরিয়ে মাদকাসক্ত ছেলে বৃদ্ধ পিতার কাছে ২০ হাজার টাকা দাবি করে। টাকা দিতে না পারায় স্ত্রীর সহযোগিতায় জন্মদাতা পিতাকে পিটিয়ে ও শ্বাসরোধ করে হত্যা করেছে এক মাদকাসক্ত ছেলে।
মঙ্গলবার টাঙ্গাইলের মির্জাপুরে ঘটনাটি ঘটেছে ।
নিহত পিতার নাম নুরুল হক (৭০)।
অভিযোগ উঠেছে মাদকাসক্ত ছেলে লাবলু তার কথিত স্ত্রী রোকেয়ার সহযোগিতায় তার পিতাকে হত্যা করেছেন। মঙ্গলবার রাতে উপজেলার ভাতগ্রাম ইউনিয়নের বাগজান গ্রামে এ ঘটনা ঘটেছে।

পুলিশ ঘটনার সঙ্গে জড়িত রোকেয়াকে রাতেই উপজেলার জামুর্কী ইউনিয়নের পাকুল্যা গ্রাম থেকে গ্রেপ্তার করেছে। তিনি পাকুল্যা গ্রামের রফিক মিয়ার মেয়ে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, মঙ্গলবার বিকেলে মাদকাসক্ত ছেলে লাভলু (৩০) জেল থেকে জামিনে বের হন।
লাভলু তার কথিত স্ত্রীকে নিয়ে বাড়িতে গিয়ে জামিনে বের হতে তার ২০ হাজার টাকা খরচ হয়েছে দাবি করে বৃদ্ধ পিতাকে ওই টাকা দিতে চাপ দেন। এক পর্যায়ে লাভলু স্ত্রী রোকেয়ার সহযোগিতায় পিতাকে লাঠি দিয়ে বেদম পিটিয়ে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে পালিয়ে যান। রাতেই মির্জাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. সায়েদুর রহমান অভিযান চালিয়ে রোকেয়াকে গ্রেপ্তার করে।

ভাতগ্রাম ইউপি চেয়ারম্যান মো. আজহারুল ইসলাম বলেন, মাদকাসক্ত ছেলে বৃদ্ধ বাবার কাছে ২০ হাজার টাকা দাবি করে। বাবা টাকা দিতে না পারায় স্ত্রীর সহযোগিতায় বাবাকে হত্যা করে সে।
ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. সায়েদুর রহমান বলেন, রাতেই রোকেয়াকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। ময়নাতদন্ত রিপোর্ট পাওয়ার পর প্রকৃত ঘটনা জানা যাবে। ছেলে লাভলুকে গেপ্তারে পুলিশি অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

Previous articleবাকৃবিতে ছাত্রলীগের ৩ নেতা বহিষ্কার
Next articleবেগমগঞ্জে সিএনজি-পিকআপ মুখোমুখি সংঘর্ষে মা-মেয়ে নিহত
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।