তাবারক হোসেন আজাদ: লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে নিখোঁজের একদিন পর শনিবার (০৬ ফেব্রুয়ারী) রাতে জুটন নামে এক যুবকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

রোববার দুপুরে (৭ ফেব্রুয়ারী) নিহতের ঘটনায় একই গ্রামের এক গৃহবধূকে আটক করা হয়েছে।

নিহত আতাউর রহমান জুটন (৪০) উপজেলার চরআবাবিল ইউপির টাকুয়ারচর গ্রামের মাতাব্বর বাড়ি মুখলেছুর রহমানের ছেলে।

স্থানীয়রা জানায়, টাকুয়ারচর গ্রামের গৃহবধূ নয়ন আক্তারের সাথে জুটনের প্রেমের সম্পর্ক ছিলো। প্রায় ওই ঘরে জুটন আসা যাওয়া করতেন। শুক্রবার রাত (৫ ফেব্রুয়ারী) থেকে জুটনকে তার পরিবারের লোকজন অনেক খোঁজাখুঁজি করেও পায়নি। তার মোবাইলও বন্ধ ছিলো। জুটনের মা ও বাবা প্রায় ৫ বছর আগে মারা গেছেন। তিনি বোনদের সঙ্গে নিজ বাড়িতেই থাকতেন। শনিবার বিকেলে জুটনের নিখোঁজের ঘটনায় তার ছোটবোন এ ঘটনায় থানায় সাধারন ডায়রি করেন। পরে পুলিশ রাতে বিভিন্ন স্থানে খোঁজ নিয়ে পাশের গ্রামের নয়ন আক্তারের বিল্ডিংয়ের ভেতর থেকে মরদেহ উদ্ধার করে।

চরআবাবিল ইউপি চেয়ারম্যান নাছির উদ্দিন বলেন, গৃহবধু নয়ন আক্তার জুটনকে মেরে বাসার এক রুমে কম্বল ও বস্তা পেঁচিয়ে রেখে বাসা থেকে পালিয়ে যায়। পরে পুলিশ সন্দেহ করে ঘর ভেঙে মরদেহ উদ্ধার করেছে। তদন্তে মুল রহস্য উদঘাটন হবে।

রায়পুর থানার ওসি আবদুল জলিল বলেন, ব্যবসায়ী যুবক জুটনের মরদেহ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। নিহতের ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।