বাংলাদেশ প্রতিবেদক: সুনামগঞ্জের শাল্লায় হিন্দু সম্প্রদায়ের উপর নির্যাতনের প্রতিবাদে ঈশ্বরদীতে অনুষ্ঠিত বিক্ষোভ সমাবেশে দাঁড়িয়ে বক্তারা বলেছেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আপনি মানবতার মা। স্বাধীনতার সূবর্ণ জয়ন্তিতে হিন্দু সম্প্রদায়ের উপর নির্যাতনের প্রতিবাদ জানাতে আবারো আমাদের রাস্তায় দাঁড়াতে হচ্ছে। সংখ্যালঘু নির্যাতনের ঘটনায় রাস্তায় দাঁড়িয়ে বার বার প্রতিবাদ জানাতে আর ভালো লাগে না। তাই হয় হিন্দুদের নিরাপত্তা দেন, না হয় বিষ দেন। এদেশের হিন্দুরা একযোগে মৃত্যুবরণ করলেই সাম্প্রদায়িক অপশক্তি শান্তি পাবে।

শাল্লায় হিন্দু সম্প্রদায়ের উপর নির্যাতনের প্রতিবাদে বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ ঈশ্বরদী উপজেলা শাখা আয়োজিত সোমবার সকালে ঈশ্বরদী শহরের প্রাণকেন্দ্র বাজারের ১ নং গেট এলাকায় মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। সভায় বক্তরা আরো বলেন, এদেশে সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের উপর হামলা, জায়গা-জমি দখল, বাড়ি-ঘরে লুটপাঠ, অগ্নিসংযোগ, মন্দির ও প্রতিমা ভাংচুরের ঘটনা ঘটলেও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি হচ্ছে না। একারণে সাম্পদায়িক অপশক্তি বার বার অপকর্ম ঘটিয়ে পার পেয়ে যাচ্ছে। সংখ্যালঘু নির্যাতন প্রতিহত করতে অবিলম্বে জাতীয় সংসদে বিশেষ আইন প্রণয়ন এবং দ্রুত বিচার নিশ্চিত করার দাবী জানানো হয়। সভায় সভাপতিত্ব করেন পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি সুনিল চক্রবর্তি।
বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, ঈশ্বরদী প্রেসক্লাবের সভাপতি স্বপন কুমার কুন্ডু, হিন্দু, বৌদ্ধ, খৃস্টান ঐক্য পরিষদের উমা শংকর বাবু পান্ডে, পূজা উদযাপন পরিষদের মিলন কর্মকার, ডা: সুজয় কুন্ডু, ঐক্য পরিষদের পার্থপ্রতিম দাস, হরেকৃষ্ণ সম্প্রদায়ের দিপু রায়, হিন্দু মহাজোটের উত্তম সাহা, দিপংকর কুমার প্রমূখ। সঞ্চালনা করেন হিন্দু মহাজোটের গোপাল অধিকারী।
মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশে স্থানীয় বিভিন্ন মন্দির কমিটির নের্তৃবৃন্দ ও সুধিজন অংশগ্রহন করেন।

Previous articleপাঁচবিবিতে রাতে ব্রীজের নীচে মাটি খনন, বিকেলে পিলারে ফাটল
Next articleঈশ্বরদীতে রেল পুলিশের অভিযানে গাঁজাসহ মাদক ব্যবসায়ী আটক
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।