অতুল পাল: বাউফলে জমিজমা নিয়ে পূর্ব বিরোধের জের ধরে মাতৃহারা এক কিশোরীকে গলা টিপে শারিরিক নির্যাতন করা হয়েছে। নির্যাতনের শিকার ওই কিশোরীকে তার দাদি রক্ষা করতে এগিয়ে এলে তাকেও লোহার রড দিয়ে বেধরক পিটিয়ে হাত ভেঙে দেয়া হয়েছে। উপজেলার বগা ইউনিয়নের চাঁদপাল গ্রামে বৃহস্পতিবার দুপুরে এমন ঘটনা ঘটেছে। এঘটনায় আজ শনিবার (২৪ এপ্রিল) বাউফল থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেন ওই কিশোরীর বাবা মো. মোজাম্মেল হাওলাদার (৪০)। স্থানীয় ও অভিযোগ সূত্র থেকে জানা যায়, বগা ইউনিয়নের চাঁদপাল গ্রামের মৃত. হেমায়েত মুন্সির ছেলে আ. মোতালেবের (৫৫) সাথে একই বাড়ির মৃত আলতাফ হোসেনের ছেলে মো.মোজাম্মেল হোসেনের জমিজমা নিয় বিরোধ চলছে। ঘটনার দিন তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে মোজ্জামেল হোসেনের মেয়ে মোসা. রোজিনার (১৫) সাথে মোতালেবের কথা কাটাকাটি হয়। এক পর্যায় মোতালেব, তার স্ত্রী খাদিজা বেগম (৪৫) ও তার ছেলে মেয়েরা রোজানিাকে ব্যাপক মারধর করেন এবং তার গলা টিপে হত্যার চেষ্টা করে। এসময় দাদি মনোয়ারা বেগম (৬০) নাতিন রোজিনাকে বাঁচাতে এগিয়ে গেলে তাকেও লোহার রড দিয়ে পিটিয়ে বাম হাতের হাড় ভেঙে দেয়া হয়। স্থানীয়রা আহত দাদি ও নাতিনকে উদ্ধার করে বাউফল হাসপাতালে ভর্তি করেন। মো. মোজাম্মেল হোসেন বলেন, আমার পৈত্রিক জমিজমা নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে প্রতিপক্ষের সাথে বিরোধ চলছে। আমার এবং আমার পরিবারের ক্ষতি করার জন্য প্রতিপক্ষরা সব সময় চেষ্টা করে যাচ্ছে। পেশাগত কারণে আমি বরিশালে থাকি। বাড়িতে আমার মা ও মেয়ে থাকে। ঘটনার দিন তারা আমার মেয়েকে মারধর করে এবং হত্যার উদ্দেশ্যে গলা চিপে ধরে। চিৎকার শুনে বৃদ্ধ মা তাকে বাঁচাতে গেলে তাকেও মারধর করা হয়। লোহার রড দিয়ে পিটিয়ে মায়ের হাত ভেঙে দেয়া হয়। আমি বরিশাল থেকে এসে আজ শনিবার বাউফল থানায় অভিযোগ দিয়েছি। এবিষয়ে বাউফল থানার ওসি তদন্ত মো. আল মামুন বলেন, অভিযোগ পেয়েছি । তদন্তের জন্য ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। তদন্ত শেষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

Previous articleবাউফলে চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে চাঁদাবাজি মামলায় ওয়ারেন্ট, স্থবির ইউপির স্বাভাবিক কার্যক্রম
Next articleপাঁচবিবিতে ফেন্সিডিলসহ মাদক কারবারী আটক
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।