বাংলাদেশ প্রতিবেদক: মুলাদীতে ছাত্রলীগ নেতা ইমরান খানের হাত ভেঙ্গে দিয়েছে দুর্বৃত্তরা। গত মঙ্গলবার বেলা সাড়ে ১১টায় উপজেলার প্যাদারহাট বন্দরের সিকদার মার্কেটের সামনে ইছাহাক হাওলাদারের নেতৃত্বে ১২/১৩ দুর্বৃত্ত রেঞ্জ ও পাইপ দিয়ে পিটিয়ে ইমরান খানের হাত ভেঙ্গে দেয়।

এসময় হামলাকারীরা ইমরানকে স্ক্রু ড্রাইভার দিয়ে খুচিয়ে মারাতœক জখম করে। পূর্বশত্রুতার জেরধরে চরকমিশনার গ্রামের ইউনুছ খানের শ্যালকের নেতৃত্বে এ হামলা চালানো হয় বলে দাবী করেছেন ইমরানের পরিবার। ইমরান খান কাজিচর ইউনিয়নের চরকমিশনার গ্রামের সিরাজ খানের পুত্র। সে ঢাকার সরকারি তিতুমীর কলেজ ছাত্রলীগের গ্রন্থনা ও প্রকাশনা সম্পাদক। সিরাজ খান জানান, জমির সীমানা পিলার নির্ধারণকে কেন্দ্র করে গত সোমবার একই বাড়ির চান খানের পুত্র ইউনুছ খানের সাথে তার কথার কাটাকাটি হয়। একপর্যায়ে ইউনুছ খান লাঠি নিয়ে তেড়ে তার পুত্র ইমরান খানকে মারতে আসেন। ওই সময় ইউনুছ খান পড়ে গিয়ে আহত হন। গত মঙ্গলবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে ইমরান খান প্যাদারহাট বন্দরে ঔষধ আনতে যায়। ওই সময় পূর্ব থেকে ওত পেতে থাকা ইউনুছ খানের শ্যালক ইছাহাক হাওলাদারের নেতৃত্বে ১৪/১৫জন দুর্বৃত্ত দেশিয় অস্ত্র নিয়ে হামলা চালায়। হামলাকারীরা রেঞ্জ ও লোহার পাইট দিয়ে পিটিয়ে ইমরানের বাম হাত ভেঙ্গে দেয় এবং স্ক্রু ড্রাইভার দিয়ে খুচিয়ে দুই পাসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে মারাতœক জখম করে। ইমরানের ডাকচিৎকারে পার্শ্ববর্তী দোকানদার ও স্থানীয়রা এসে তাকে উদ্ধার করে মুলাদী হাসপাতালে নিয়ে আসে। তার অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় চিকিৎসক তাকে বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে প্রেরণ করে। এ ঘটনায় গতকাল বুধবার ইমরানের পিতা সিরাজ খান বাদী হয়ে ইছাহাক হাওলাদার, মিজানুর রহমান, নজরুল ইসলামসহ ৮জনের নাম উল্লেখ করে ১৪জনের বিরুদ্ধে মুলাদী থানায় মামলা করেছেন। ইছাহাক হাওলাদার জানান, ইমরানের ওপর হামলার বিষয়ে আমার কিছুই জানা নাই। আমার বোনের কাছে হামলার বিষয়টি শুনেছি। এব্যাপারে মুলাদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এসএম মাকসুদুর রহমান জানান অভিযুক্তদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

Previous articleরূপপুর প্রকল্পে কর্মরতদের জরুরী ভিত্তিতে করোনার টিকাদান শুরু
Next articleনোয়াখালীতে পাইপগান-কার্তুজসহ ৫ ডাকাত আটক
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।