বাংলাদেশ প্রতিবেদক: সম্প্রতি জামালপুরগামী একটি চলন্ত ট্রেনে ডাকাতি ও হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে ৫ জনকে আটক করেছে র‌্যাব। সংঘবদ্ধ চক্রের এই সদস্যদের হামলাতেই ট্রেনের ছাদে ওই দুই যাত্রী নিহত হন।

রোববার ময়মনসিংহে র‍্যাবের কার্যালয়ে এক সংবাদ ব্রিফিংয়ে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

গত বৃহস্পতিবার রাতে ঢাকা থেকে জামালপুরগামী একটি ট্রেনে ডাকাতি করার সময় ট্রেনটির ছাদে থাকা নাহিদ মিয়া ও সাগর নামে দুজন ডাকাতদের অস্ত্রের আঘাতে নিহত হন। নাহিদ ও সাগর ট্রেনের কামরায় জায়গা না পেয়েই ছাদে উঠেছিলেন।

র‍্যাব-১৪-এর অধিনায়ক উইং কমাণ্ডার রোকনুজ্জামান জানান, আটককৃতরা প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানিয়েছে, ট্রেনে ডাকাতির উদ্দেশ্যেই কমলাপুর থেকে ৪ জন, টঙ্গি স্টেশন থেকে ৩ জন এবং পরে ফাতেমানগর থেকে তাদের সঙ্গে আরও দুইজন যোগ দেয়। তারা একত্রিত হয়ে ট্রেনের ইঞ্জিন বগি থেকে লুটপাট শুরু করে।

এক পর্যায়ে তারা ছাদে থাকা নাহিদ মিয়া ও সাগরের কাছে যায়। ওই দুজন ডাকাতদের বাধা দেওয়ার চেষ্টা করে। ট্রেনের ছাদে সেখানে ধস্তাধস্তি হয়। এসময় ডাকাতরা অস্ত্র দিয়ে মাথায় আঘাত করলে ট্রেনের ছাদেই লুটিয়ে পড়েন সাগর ও নাহিদ। পরে ট্রেনটি ময়মনসিংহ স্টেশনের কাছাকাছি পৌঁছালে সিগনালের কারণে গতি কমায়। এই সুযোগে ডাকাতরা ট্রেন থেকে নেমে চলে যায়।

র‌্যাব জানায়, আটক ব্যক্তিরা নিয়মিতভাবে এরকম কার্যক্রম চালিয়ে আসছে। তারা টঙ্গী, কমলাপুর, ফাতেমানগর, গফরগাঁও স্টেশন থেকে দলে দলে ভাগ হয়ে ট্রেনে উঠতেন। তারা ট্রেনে ডাকাতি করে ময়মনসিংহে নেমে যেতেন। আটক ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে। চক্রের অন্য সদস্যদের ধরতে অভিযান অব্যাহত আছে।

Previous articleরংপুরের কাউনিয়ায় গাছ থেকে পড়ে ব্যবসায়ীর মৃত্যু
Next articleবাংলাদেশে পর্যটনের বিশাল সম্ভাবনা রয়েছে: প্রধানমন্ত্রী
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।