সুজন মহিনুল: নীলফামারীতে অষ্টম শ্রেণির ছাত্রী ইতি আক্তারকে ধর্ষণের পর হত্যার ঘটনায় দায়ের হওয়া মামলায় মাহমুদার রহমান(৩৭)নামের এক যুবককে মৃত্যুদণ্ডের রায় ও দেড় লাখ টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

বুধবার(২৬ অক্টোবর)দুপুরে নীলফামারীর নারী ও শিশু নির্যাতন দমন বিশেষ ট্রাইব্যুনাল-১-এর বিচারক জ্যেষ্ঠ জেলা ও দায়রা জজ মো. মনসুর আলম ওই দণ্ডাদেশ প্রদান করেন। তবে দণ্ডপ্রাপ্ত আসামি ঘটনার পর থেকে পলাতক রয়েছে।মামলা সূত্রে জানা যায়, ২০০৯ সালের ৩০ সেপ্টেম্বর জলঢাকার মাথাভাঙা গ্রামের রাবেয়া মহিলা ডিগ্রি কলেজ সংলগ্ন এলাকায় স্কুলছাত্রী ইতি আক্তারকে ধর্ষণের পর হত্যা করেন মাহমুদার রহমান। মাহমুদার একই উপজেলার দুন্দিবাড়ি গ্রামের আফান উদ্দিনের ছেলে।

ঘটনার পরদিন ভুক্তভোগীর বাবা ইয়াকুব আলী বাদী হয়ে থানায় ধর্ষণ ও হত্যা মামলা দায়ের করেন।দীর্ঘ ১৩ বছরে ১৪ জন সাক্ষীর সাক্ষ্যগ্রহণ শেষে আদালতের বিচারক এই দণ্ডাদেশ প্রদান করেন।মামলায় সরকারপক্ষের আইনজীবী ছিলেন নারী ও শিশু নির্যাতন দমন বিশেষ আদালতের বিশেষ পিপি রমেন্দ্র বর্ধন বাপ্পী।

ইতি আক্তারের বড় ভাই শরিফুল ইসলাম রায়ে সন্তুষ্ট হয়ে দ্রুত আসামিকে গ্রেপ্তার করে মৃত্যুদণ্ড কার্যকরের দাবি জানান।

Previous articleপাঁচবিবিতে শিক্ষক দিবস পালিত
Next articleজবির সাবেক পরিবহন প্রশাসকের গাড়ি মুচড়ে দিল সিএনজি
আজকের বাংলাদেশ ডিজিটাল নিউজ পেপার এখন দেশ-বিদেশের সর্বশেষ খবর নিয়ে প্রতিদিন অনলাইনে । ব্রেকিং নিউজ, জাতীয়, আন্তর্জাতিক রিপোর্টিং, রাজনীতি, বিনোদন, খেলাধুলা আরও অন্যান্য সংবাদ বিভাগ । আমাদের হাত বাধা নেই, আমাদের চোখ খোলা আমরা বলতে পারি ।